সদ্য সংবাদ

  ভারতের মতো মানসম্পন্ন পেসার আমাদের নেই: নান্নু  নারায়ণগঞ্জ পেঁয়াজের বাজার জেলা প্রশাসনের অভিযান   এবার মিলারদের কারসাজিতে চালের বাজারও অস্থির  নতুন নাটকে মডেল সাবরিনা প্রমি   স্বেচ্ছা‌সেবক লী‌গের সভাপ‌তি নির্মল, সম্পাদক বাবু  ইউক্রেন কাণ্ড: সাক্ষীকে ‘ভয়’ দেখাচ্ছেন ট্রাম্প  পেঁয়াজ খাওয়া বন্ধ করে দিন, সিন্ডিকেট ভেঙে যাবে: গয়েশ্বর   নবীনগরে দুই সহযোগীসহ ইয়াবা সম্রাট গ্রেফতার   সাংবাদিক আব্দুস সাত্তারের মৃত্যু  পেঁয়াজ আমদানীতে সরকারকে কোন শুল্ক দিতে হয় না - অর্থমন্ত্রী   পেঁয়াজ বিমানে উঠে গেছে, কাজেই আর চিন্তা নাই: প্রধানমন্ত্রী  অস্ত্রবিরতি সত্ত্বেও গাজায় ইসরাইলি বিমান হামলা  সৌদি থেকে দেশে ফিরলেন নির্যাতিত সুমিসহ ৯১ নারী  সরকার নিজেই সিন্ডিকেট তৈরি করে পেঁয়াজের দাম বাড়াচ্ছে: ন্যাপ  জনবান্ধব পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলামে আস্থা নারায়ণগঞ্জবাসীর  টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা যুবক নিহত, লক্ষাধিক ইয়াবাসহ অস্ত্র উদ্ধার  প্লাজমা ফাউন্ডেশনের ৩য় প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন  নবীনগরে এসএসসির ফরম পূরণে অনিয়মের অভিযোগ,  তুরস্কসহ চার দেশ থেকে বিমানে আসছে পেঁয়াজ  মহেশপুরে পুলিশের গুলিতে মাদক ব্যবসায়ী আহত

আশিকি'র সেই সুপারহিট নায়িকা এখন স্কুল শিক্ষিকা

 Fri, Jan 13, 2017 11:30 AM
আশিকি'র সেই সুপারহিট নায়িকা এখন স্কুল শিক্ষিকা

ডেস্ক রিপোর্ট:: মডেলিংয়ের মাধ্যমে যাত্রা হলেও 'আশিকি' দিয়ে সিনেমায় পা রাখা। ১৯৯০ সালের ১৭ই আগস্ট মুক্তি পেয়ে ইতিহাস সৃষ্টি করেছিল ছবিটি। সেই বছরের সেরা হিট ছবি। একইসঙ্গে সুপারহিট সংগীত।

 ছবিটির গানের ক্যাসেট বিক্রি হয়েছিল প্রায় দেড় কোটি যা হিন্দি সিনেমার ইতিহাসে রেকর্ড। শ্রীদেবী, দিব্যা ভারতীর যুগে শ্যামলা মেয়ে অনু আগরওয়াল যেন আগুনের ফুলকি হয়ে হাজির হন। তবে এরপরই নক্ষত্রের পতন। দীর্ঘ ১৫ বছর পর তাকে খুঁজে পাওয়া গেল একটি স্কুলে। বিয়ে করেননি। শিক্ষকতার মাঝে খুঁজে নিয়েছেন বাঁচার উপকরণ।

অনুর শুরুটা হয়েছিল মডেলিং দিয়ে। এরপর সঞ্চালনা। নজরে পড়েন মহেশ ভাটের। কিন্তু সিনেমায় অনাগ্রহ মেয়েটির। ফিরিয়ে দেন মহেশকে। কিন্তু মহেশ ভাটের যে অনুকেই চাই। কারণ, তার চিত্রনাট্য যেন অনুর জন্যই লেখা। নানাভাবে অনুরোধ পাঠান মহেশ। বারবার প্রত্যাখ্যত হন। পরে জানান, অনু না করলে ছবিটি তিনি করবেন না। বিখ্যাত পরিচালক। আর না করতে পারলেন না। নতুন নায়ক রাহুল রায়ের সঙ্গে অভিনয় করলেন ‘আশিকি’তে। এক ছবিতেই খ্যাতির শীর্ষে পৌঁছে যান শ্যামলা মেয়েটি। আশিকির পর আরো ৯টি ছবি করেন অনু। তবে বক্স অফিসে সাফল্য পায়নি একটিও। ১৯৯৯ সালে মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হন নায়িকা। হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে কয়েক মাস লড়াই চলে। ২৯ দিন কোমায় কাটানোর পর স্মৃতিশক্তি হারিয়ে ফেলেন। শরীরের কিছুটা অংশও বিকলাঙ্গ হয়ে যায়। জ্বলে উঠেই দপ করে নিভে যায় তারকাটি। আর কেউ খোঁজ রাখেনি অনু আগরওয়ালকে। ১৫ বছর পর ২০১৫ সালে বিহারের মুঙ্গের জেলায় কোনো একটি স্কুলে এক সাংবাদিকের নজরে পড়েন মধ্যবয়স্ক এক মহিলা। চুলে পাক ধরা। মুখের চামড়া কুচকে গেছে। কিন্তু ওই সাংবাদিকের চোখ আটকে যায় ওই মধ্য বয়স্ক নারীর দিকে। কেন যেন অতি পরিচিত মনে হচ্ছে তাকে। সেই মধ্যবয়স্ক নারী ওই স্কুলের যোগাসন শিক্ষিকা। সংসারধর্ম হয়নি। সাংবাদিকের অনেক দিনের পরিশ্রমের পর জানা যায়, ওই নারী আর কেউ নয়, ‘আশিকি’র অনু আগরওয়াল। সবকিছু ছেড়ে স্কুলে শিক্ষকতার মাঝে খুঁজে নিয়েছেন নিজের মতো করে বাঁচার উপাদান।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন