সদ্য সংবাদ

  প্রাথমিকে উপবৃত্তির টাকা বিতরণ করা হবে ‘নগদে’  নবীনগর-শিবপুর-রাধিকা সড়ক উন্নয়ন প্রকল্প উদ্বোধন   পঞ্চগড় পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে লড়াই হবে তৌহিদুল -জাকিয়া  কৃষকদের পরিশ্রমে আজ বাংলাদেশ উন্নত -ডেপুটি স্পীকার  দায়িত্ব নিয়েই ১০০ দিন জনগণকে মাস্ক পরাবেন বাইডেন   রোহিঙ্গাদের জন্য দেশের ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে: ওবায়দুল কাদের   পুলিশের লাঠিপেটায় ছত্রভঙ্গ ভাস্কর্য বিরোধী মিছিল  ফতুল্লায় নৃত্য শিল্পি ধর্ষণ: গ্রেফতার ১  দেশের সাত জেলায় সড়কে ঝরল ২১ প্রাণ  গাঁজা বিপজ্জনক মাদক নয় : জাতিসঙ্ঘ   ‘দেশে আলেমদের মাঠে নামিয়েছে সরকার: ডা. জাফরুল্লাহ  দুদকে যেতেই হবে ডিএজি রুপাকে   জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার-২০১৯ বিজয়ীদের নাম ঘোষণা  সিদ্ধিরগঞ্জে এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে হত্যা  ঘুষ নেওয়ার ভিডিও ভাইরাল, এএসআই প্রত্যাহার   পাকিস্তানের ১৯৭১ সালের নৃশংসতা অমার্জনীয় : প্রধানমন্ত্রী  ‘আওয়ামী লীগ ও বিএনপি দেশের মানুষকে হতাশ করেছে’   ২৫ ব্যাংকে খেলাপি ঋণ ৮০ হাজার কোটি টাকা  ঢাকার যাত্রীদের জন্য গুগল ম্যাপে নতুন ফিচার  নবীনগরে অজ্ঞাতনামা মহিলার লাশ উদ্ধার

প্যারিসে হোটেলে ধর্ষণের শিকার হতে পারতেন কিম কারদেশিয়ান

 Tue, Mar 21, 2017 10:37 AM
প্যারিসে হোটেলে ধর্ষণের শিকার হতে পারতেন কিম কারদেশিয়ান

ডেস্ক রিপোর্ট :: গত বছর ৩ অক্টোবর ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসের একটি হোটেলে ছিনতাইকারীদের

হাতে বন্দি হয়েছিলেন রিয়েলিটি শো’র তারকা কিম কারদেশিয়ান। ওই রাতে ছিনতাইকারীরা তার কয়েক মিলিয়ন মূল্যের অলঙ্কার ও ইউরো ছিনিয়ে নেয়।

রোববার রাতে ‘কিপিং আপ উইথ কারদেশিয়ান’ অনুষ্ঠানে তিনি প্রথমবারের মতো বললেন, ওই রাতে তিনি ছিনতাইকারীদের হাতে ধর্ষণেরও শিকার হতে পারতেন। এমন কি খুনও হয়ে যেতে পারতেন।

অনুষ্ঠানে কারদেশিয়ান বললেন, ‘বন্দুকদারী দুজন প্রথমে টেপ দিয়ে আমার মুখ বন্ধ করে ফেলে। তারপর আমাকে বিছানায় ফেলে দেয়। আমার গাঁয়ে নিচের কোনো পোশাক ছিল না। তাদের একজন আমার উপরে চড়ে বলে, হ্যাঁ, এই হ”েছ সময় ৃ.’ কারদেশিয়ান কাঁদতে কাঁদতে বলেন, ‘আমি ধর্ষণের শিকার হওয়ার জন্য মানসিকভাবে একেবারে প্র¯‘তি নিয়ে ফেলেছিলাম। লোকটি আমার দুপা টেনে ধরেছিল। ’

কিš‘, তাদের একজন হঠাৎ আমার মাথায় বন্দুক চেপে ধরে। আমি ভাবছিলাম তারা আমাকে এক্ষুণি মেরে ফেলবে। আমি মনে মনে প্রার্থনা করছিলাম আমার মৃত্যুর পর যেন আমার মেয়েটার জীবন স্বাভাবিক থাকে।’

শেষ পর্যন্ত তারা আমাকে মারেনি, ধর্ষণও করেনি। হাত পা বেঁধে রেখে বাথরুমে নিয়ে ফেলে রাখে আর আমার বহুমূল্যের গয়না ও অর্থকড়ি নিয়ে পালিয়ে যায়।

তারপর অবশ্য এই ঘটনার জন্য ১৭ সন্দেহভাজনকে আটক করা হয়। তাদের ১০ জনের বিরুদ্ধে এখনো মামলা চলছে। সিএনএন,

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন