সদ্য সংবাদ

 কালকিনিতে ১৩১ বাড়িতে লাল নিশানা লাগিয়ে দিলো প্রশাসন  করোনার বিরুদ্ধে সাইফুল ইসলাম শান্তির অভিযান শুরু  রংপুরে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  নরসিংদীতে হোম কোয়ারেন্টিনে ২০৫ প্রবাসী  কালকিনির বিভিন্ন হাট-বাজারে হাতধোয়ার জন্য বেসিন স্থাপন  পঞ্চগড়ে সাড়ে ৭শ’ পিস হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ  রংপুরে করোনা প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  পার্বতীপুরে শুধুমাত্র পূজার মধ্যদিয়ে ঐতিহ্যবাহী ‘বাহা পরব’ উদযাপিত  রংপুরে এরশাদের জন্মদিন পালিত  বিএফআরআইতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী এবং জাতীয় শিশু দিবস পালিত  করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে পঞ্চগড়ে জরুরি বৈঠক  আতঙ্কিত না হয়ে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে : সাদ এরশাদ এমপি  কালকিনিতে দুই প্রবাসীকে আর্থিক জরিমানা  পঞ্চগড়ে সীমিত পরিসরে মুজিববর্ষ পালিত  রংপুরে ৮টি রাস্তা পাকাকরণ ও ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু  কালকিনিতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে মুজিব উতসব পালিত  কালিয়াকৈর প্রেসক্লাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  রংপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে কীটনাশক মুক্ত সবজির চাষ!

বলিউডের বর্ষীয়ান অভিনেতা শশী কাপুর আর নেই

 Tue, Dec 5, 2017 6:42 AM
বলিউডের বর্ষীয়ান অভিনেতা শশী কাপুর আর নেই

ডেস্ক রিপোর্ট : : বলিউডের বর্ষীয়ান অভিনেতা শশী কাপুর (৭৯) আর নেই। মুম্বাইয়ের কোকিলা বেন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায়


 সোমবার বিকাল সোয়া পাঁচটার দিকে তিনি মারা যান। মঙ্গলবার তার শেষকৃত্য হবে।


তিনি অভিনেতা পৃথ্বীরাজ কাপুরের তৃতীয় সন্তাণ। তার মৃত্যুকে একটা যুগের অবসান বলেই ব্যখ্যা করছেন বলিউডের একটা বড় অংশ। বড় দুই ভাই রাজ কাপুর, শাম্মি কাপুরের পর সেই লিগ্যাসিটা এতোদিন ধরে রেখেছিলেন শশীই।


বার্ধক্যজনিত নানা রোগে বেশ কয়েক মাস ধরেই ভুগছিলেন এ অভিনেতা। ১৭৫টিরও বেশি ছবিতে অভিনয় করা এ অভিনেতার পুরো নাম বলবীর রাজ কাপুর।


১৯৪৮ সালে শিশু অভিনেতা হিসেবে এই জগতে প্রবেশ করেন তিনি। তবে ১৯৬১ সালে ‘ধর্মপুত্র’ ছবিতে নায়ক হিসেবে ডেবিউ। তার মতো সুপুরুষ অভিনেতা খুব কমই এসেছেন ইন্ডাস্ট্রিতে।


শুধু অভিনয় নয়, ছবি তৈরির গোটা পদ্ধতির মধ্যেই নিজেকে ব্যস্ত রাখতেন তিনি। পরিচালকের চেয়ারেও তাকে দেখেছে বলিউড।


তার উল্লেখযোগ্য কাজের মধ্যে আছে ‘সিলসিলা’, ‘জুনুন’, ‘কালযুগ’, ‘বিজেতা’, ‘উৎসব’। ১৯৯১ সালে ‘আজুবা’ নামে একটি হিন্দি ছবি পরিচালনা করেন শশী কাপুর।


এ ছবিতে অভিনয় করেছিলেন অমিতাভ বচ্চন। তা ছাড়া এই তারকা ১৯৮৮ সালে একটি রাশিয়ান ছবি পরিচালনা করেন।


শশী কাপুর ২০১১ সালে পদ্মভূষণ ও ২০১৫ সালে দাদাসাহেব ফালকে পুরস্কার পান। শশী কাপুর কলকাতায় জন্মগ্রহণ করেছিলেন।


তার মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, লতা মঙ্গেস্কার ও মমতা ব্যানার্জি থেকে শুরু করে অনেকেই।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন