সদ্য সংবাদ

 কালকিনিতে ১৩১ বাড়িতে লাল নিশানা লাগিয়ে দিলো প্রশাসন  করোনার বিরুদ্ধে সাইফুল ইসলাম শান্তির অভিযান শুরু  রংপুরে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  নরসিংদীতে হোম কোয়ারেন্টিনে ২০৫ প্রবাসী  কালকিনির বিভিন্ন হাট-বাজারে হাতধোয়ার জন্য বেসিন স্থাপন  পঞ্চগড়ে সাড়ে ৭শ’ পিস হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ  রংপুরে করোনা প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  পার্বতীপুরে শুধুমাত্র পূজার মধ্যদিয়ে ঐতিহ্যবাহী ‘বাহা পরব’ উদযাপিত  রংপুরে এরশাদের জন্মদিন পালিত  বিএফআরআইতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী এবং জাতীয় শিশু দিবস পালিত  করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে পঞ্চগড়ে জরুরি বৈঠক  আতঙ্কিত না হয়ে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে : সাদ এরশাদ এমপি  কালকিনিতে দুই প্রবাসীকে আর্থিক জরিমানা  পঞ্চগড়ে সীমিত পরিসরে মুজিববর্ষ পালিত  রংপুরে ৮টি রাস্তা পাকাকরণ ও ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু  কালকিনিতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে মুজিব উতসব পালিত  কালিয়াকৈর প্রেসক্লাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  রংপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে কীটনাশক মুক্ত সবজির চাষ!

ভারতীয়রা জানোয়ারের থেকেও অধম: মোনালি ঠাকুর

 Sat, May 12, 2018 11:11 AM
ভারতীয়রা জানোয়ারের থেকেও অধম: মোনালি ঠাকুর

ডেস্ক রিপোর্ট : : ভারত আর বসবাস করার মতো জায়গা নয়! ভারতীয়রা তো জানোয়ারের থেকেও অধম।’

 বিস্ফোরক মন্তব্যটি করে খবরের শিরোনামে উঠে এলেন মোনালি ঠাকুর। সম্প্রতি একটি সংবাদমাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এমন কথাই বলেন। নিজের ব্যক্তিগত এবং পেশাগত জীবনের কিছু কথা বলার পর ভারতের প্রসঙ্গ আসে। যেখানে তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, বিদেশে ভারতের চিত্রটা কেমন? বিদেশীরা কীভাবে দেখছেন ভারতকে। এরই উত্তরে এমনটা জানান গায়িকা। আক্ষেপের সঙ্গে মোনালি বলেন, ‘সত্যি কথা বলতে আমি ভীষণ লজ্জিত হই যখন দেখি বিদেশীরা ভারতবর্ষকে বসবাসের যোগ্যই মনে করে না। তাঁদের ধারণা ভারত একেবারেই নিরাপদ স্থান নয়। এগুলো শুনলে সত্যি খুব কষ্ট হয়। আগে আমাদের দেশের সংস্কৃতি-ঐতিহ্য নিয়ে কত প্রশংসা হত! আর এখন এই কথাগুলি কানে আসে। যা খুবই দুঃখের’। একই সঙ্গে তিনি বলে চলেন, ‘এসবের জন্য আমরা ভারতীয়রাই দায়ী। দিনের পর দিন নিজেদের ঐতিহ্যকে অসম্মান করে চলেছি। দেখতে গেলে, আমরা লোক দেখানোর জন্যই যেন উন্নত হচ্ছি। কিন্তু আসলে অধঃপতনই ঘটছে। মানুষ যেন পশুর মতো হয়ে উঠছে। যদিও পশুদের পাশবিক প্রবৃত্তিটা খুবই স্বাভাবিক। সেটাই ওদের ন্যাচারাল ইন্সটিঙ্কট। কিন্তু আমরা তো মানুষ! আমরা তো ওদের থেকেও খারাপ। পশুদের থেকেও আমাদের আচরণ খারাপ হয়ে যাচ্ছে।’ এভাবে কথায়, কথায় মোনালি দেশের বড় এক সমস্যার কথা জানালেন। প্রসঙ্গত, এক সময় মোনালির পরিবার দেউলিয়া হয়ে যায়। পড়াশোনা বন্ধ করে দিতে হয় আর্থিক অভাবের কারণে। এমনকি গ্র্যাজুয়েশনও কম্পিলিট করতে পারেননি তিনি। তবে সেসব বাধা পেরিয়ে আজ তিনি বলিউডের প্রথম সারির সঙ্গীত শিল্পীদের মধ্যে একজন। সূত্র: কলকাতা ২৪x৭

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন