সদ্য সংবাদ

  ৯০ দিনের মিশন শেষে পৃথিবীতে ফিরেছেন চীনা নভোচারীরা   দৌলতদিয়া যৌনপল্লীতে সংশ্লিষ্টতা, যুবলীগ নেতা বহিষ্কার  এক হাজার টাকা দেওয়ার ভয়ে পালায় জামালপুরের ৩ ছাত্রী: পুলিশ  মেট্রোরেলের মালামাল ভাঙারির দোকানে বিক্রি করতো চক্রটি  সিদ্ধিরগঞ্জ থেকে বৃদ্ধ চাঁদাবাজ গ্রেফতার!   মানুষের কাজই সমালোচনা করা’   কিস্তি চাওয়ায় এনআরবিসি ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধর  অ্যাসাইনমেন্টের সাথে টাকার কোনো সম্পর্ক নেই : শিক্ষামন্ত্রী  কবে গ্রাহকদের টাকা ফেরত দেবেন জানেন না রাসেল   ১০ দৈনিক পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিল  পঞ্চগড়ে গণহত্যার পরিবেশ থিয়েটার নির্মাণ  জমি নিয়ে বিবাদ সাঘাটায় বসতবাড়িতে হামলা লুটপাট  বিয়েকাণ্ড: 'ঘুষের' টাকা ফেরত দিল সেই পুলিশ   অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে এটিএম বুথের ২৪ লাখ টাকা লুট   আরেক বার মনোয়ান চাইবো আনোয়ার হোসেন  বাংলাদেশি কিশোরী চিঠি লিখে বিশ্বজয় করলেন   ফোনালাপ ফাঁস ও মিডিয়ায় প্রচার করা ঠিক নয়: হাইকোর্ট  আমরুল্লাহ সালেহ’র বাড়ি থেকে বিপুল টাকা উদ্ধার তালেবানের   শিক্ষা কার্যক্রমকে সময়োপযোগী করতে হবে: প্রধানমন্ত্রী   বীর মুক্তিযোদ্ধা সামসুল হক মোল্লার মৃত্যু

জাহেদী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে গরীব ও দুস্থদের মাঝে মাংস ও টাকা বিতরণ

 Fri, Jul 23, 2021 8:08 PM
 জাহেদী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে গরীব ও দুস্থদের মাঝে মাংস ও টাকা বিতরণ

জাহিদুর রহমান তারিক, স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহ-: ঝিনাইদহে ঐতিহ্যবাহী জাহেদী ফাউন্ডেশনের মহতী উদ্যোগে

প্রতিবছরের ন্যায় ভয়াবহ মহামারি করোনাকালীন পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে সমাজের অবহেলিত গরীব ও দুস্থ মানুষের জন্য প্রায় ৩০ হাজার কার্ডধারী মানুষের মাঝে জনপ্রতি ২কেজি করে গরুর মাংস ও নগদ ১০০ টাকা হারে বিতরণ করা হয়েছে। বিতরণ কার্যক্রম চলবে ঈদুল আজহার পরের দিন বৃহস্পতিবার থেকে পরবর্তি দুই দিন পর্যন্ত। এছাড়া এলাকার সমস্ত এতিমখানায় কোরবানির গরু ও ছাগলের চামড়া বিতরণ করা হয়। তাছাড়া জেলার গিলাবাড়িয়া, হাকিমপুর, ভেন্নাতলা, খাজুরা গ্রাম, ছোট-কামারকুন্ডু, মথুরাপুরসহ ৬টি গ্রামে জাহেদী ফাউন্ডেশনের কোরবানির মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ করা হয়েছে। জাহেদী ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান নাসের শাহরিয়ার জাহিদী মহুল এর আয়োজনে ২২শে জুলায় বৃহস্পতিবার সকালে ঝিনাইদহের কিংশুক ইটভাটা প্রাঙ্গণে মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ কর্মসূচি (কোরবানীর মাংস) উদ্বোধন করা হয়। জাহেদী ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান নাসের শাহরিয়ার জাহিদী মহুল এর পক্ষ থেকে কাইয়ুম শাহরিয়ার জাহেদী হিজল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের বক্তব্য শেষে গরীব ও দুস্থ মানুষের মাঝে মাংস ও নগদ টাকা বিতরণ করা শুরু হয়। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ইউনুস আলী, রবিউল মাষ্টার, মনির হোসেন, সাবু মিয়া, ইছাহাক আলী বিশ্বাস, আব্দুল বাড়ি মেম্বার, গনজের আলী খাঁ, ফজলু বিশ্বাস, নজরুল ইসলাম, মসলেম উদ্দিন বিশ্বাস, আ:ছাত্তার খাঁসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। আগে থেকেই ঝিনাইদহের বিভিন্ন গ্রাম ও মহল্লায় অরাজনৈতিক ব্যক্তিদের মাধ্যমে প্রকৃত গরীবদের তালিকা তৈরি করে তাদের মাঝে কার্ড দেয়া হয়েছিল। করোনাকালীন সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত পুরুষ ও মহিলারা লাইনে দাঁড়িয়ে খাদ্যসামগ্রী গ্রহণ করে।

এদিকে এক সাথে প্রায় ৩০ হাজার মানুষের মাঝে জনপ্রতি ২ কেজি করে গরুর মাংস ও প্রত্যেকে নগদ টাকা পেয়ে সবাই খুবই খুশি। ভয়াবহ মহামারি করোনাকালে গরীব ও অসহায় মানুষের জন্য সরকার ও বিভিন্ন দাতা সংস্থার দেওয়া কোটি কোটি টাকা এবং চাল গম যখন এক শ্রেণির মানুষ হরিলুট করে নিজেদের আখের গোছাতে ব্যস্ত, তখন নিজের অর্থে এমন একটি মহতী উদ্যোগ নেওয়ায় জেলা জুড়ে সুশীল সমাজ, বিভিন্ন শ্রেণি প্রতিষ্ঠান ও সাধারণ মানুষের মধ্যে ইতিবাচক সাড়া পড়েছে। জাহেদী ফাউন্ডেশনের পক্ষে তবিবুর রহমান লাবু ও ইউনুস আলী সাংবাদিদের জানান, ঝিনাইদহ জেলায় প্রতিবছরের ন্যায় এবারও প্রায় ৩০ হাজার গরীব ও দুস্থদের মাঝে ২ কেজি করে মাংস ও নগদ টাকা প্রদান করা হবে। ঈদুল আজহার পরের ৩ দিন পর্যন্ত প্রায় তিন শত কোরবানি দেওয়া গরুর মাংস বিতরণ করা হবে। মাংস ও নগদ টাকা নিতে আসা পুরুষ ও মহিলারা জানান, মহুল সাহেব শুধু দুস্থদের মধ্যে প্রতি কুরবানির সময় মাংস বিতরণ করেন তা নয়, বহুদিন ধরে মহুল সাহেব মেডিকেল ক্যাম্প স্থাপন করে অসুস্থ ব্যক্তিদেরকে বিনামূল্যে চিকিৎসা, ওষুধ বিতরণ, রোজা, ঈদ ও বিভিন্ন সময় অসহায় ব্যক্তিদের দানসহ আর্থিক সেবা করে থাকেন। জাহেদী ফাউন্ডেশনের পক্ষে তারা সাংবাদিকদের আরো জানায়, শুধু গরীব মানুষের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ নয়, গরীব মেধাবী শিক্ষার্থীদের আর্থিক অনুদান, এতিমখানার শিশুদের সহায়তা ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক ও মানবিক কাজে তাদের সাধ্যমত সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে।

এ বিষয়ে জাহেদী ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক ও রেডিয়েন্ট ফার্মাসিটিক্যালস লিমিটেডের চেয়ারম্যান নাসের শাহরিয়ার জাহেদী মহুল মুঠোফোনে সাংবাদিকদের বলেন, শুধু ঝিনাইদহ পৌর এলাকা নয়, জেলার কালীগঞ্জ, শৈলকুপা, হরিণাকুন্ডু. কোটচাঁদপুর ও মহেশপুর উপজেলায় এবং দেশের ৫জেলায়ও একযোগে এসব খাদ্য বিতরণ করা হয়েছে। শুধু মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকেই তিনি এ ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেছেন। কারণ সমাজের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের জন্য কিছু দায়বদ্ধতা থাকা উচিত বলে তিনি মনে করেন তিনি।


Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন