সদ্য সংবাদ

 কালকিনিতে ১৩১ বাড়িতে লাল নিশানা লাগিয়ে দিলো প্রশাসন  করোনার বিরুদ্ধে সাইফুল ইসলাম শান্তির অভিযান শুরু  রংপুরে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  নরসিংদীতে হোম কোয়ারেন্টিনে ২০৫ প্রবাসী  কালকিনির বিভিন্ন হাট-বাজারে হাতধোয়ার জন্য বেসিন স্থাপন  পঞ্চগড়ে সাড়ে ৭শ’ পিস হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ  রংপুরে করোনা প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  পার্বতীপুরে শুধুমাত্র পূজার মধ্যদিয়ে ঐতিহ্যবাহী ‘বাহা পরব’ উদযাপিত  রংপুরে এরশাদের জন্মদিন পালিত  বিএফআরআইতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী এবং জাতীয় শিশু দিবস পালিত  করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে পঞ্চগড়ে জরুরি বৈঠক  আতঙ্কিত না হয়ে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে : সাদ এরশাদ এমপি  কালকিনিতে দুই প্রবাসীকে আর্থিক জরিমানা  পঞ্চগড়ে সীমিত পরিসরে মুজিববর্ষ পালিত  রংপুরে ৮টি রাস্তা পাকাকরণ ও ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু  কালকিনিতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে মুজিব উতসব পালিত  কালিয়াকৈর প্রেসক্লাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  রংপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে কীটনাশক মুক্ত সবজির চাষ!

হিনা খান ‘ইয়ে রিশতা কেয়া...’ ছেড়েছেন যে কারণে

 Sat, Dec 17, 2016 2:59 PM
 হিনা খান ‘ইয়ে রিশতা কেয়া...’ ছেড়েছেন যে কারণে

এশিয়া খবর ডেস্ক :: ‘ইয়ে রিশতা কেয়া কে হলাতা হ্যায়’ সিরিয়ালটির প্রধান আকর্ষণ যে হিনা খান ছিলেন তা বলতে হয় না।

 এমনকি নির্মাতারাও জানত তার জায়গায় অন্য কাউকে আকশারার ভূমিকায় কাস্ট করলে টিআরপিতে ধস নামবে। তাই তারা চিরাচরিত পন্থা অবলম্বন করে চরিত্রটিকে হত্যা করা সিদ্ধান্ত নেয়। আর হিনাও জানতেন অনেক বছর ধরে দর্শকরা তাকে আকশারা নামেই চিনবে, তাই তিনি না ফেরার সিদ্ধান্ত নেন।
হিনা স¤প্রতি এক সাক্ষাতকারে জানিয়েছেন তার কাছে সিরিয়ালটি ক্রমে একঘেয়ে হয়ে উঠছিল। “গল্প তখনই এগোয় যখন নতুন প্রজন্ম আসে এবং গল্পকে এগিয়ে নিয়ে যায়। আকশারার জন্য কাহিনীতে আর কিছু চিল না বলে মনে হচ্ছিল। কন্যা হিসেবে বা মা হিসেবে অথবা স্ত্রী হিসেবে যে কাজ করা দরকার ছিল দার সবই করা হয়েছে। যা করা হয়েছে তা শেষ পর্যন্তই হয়েছে,” হিনা বলেন।
তিনি আরও বলেন, “আমার বিশ্বাস বেরিয়ে যাবার জনই এটিই ছিল সঠিক সময়। সত্যি কথা বলতে আমার কাছে একঘেয়ে লাগছিল। কোনও কোনও সময় আমি নির্মাতাদের জানিয়েছি আমি শো ছাড়তে চাই। কিন্তু প্রতিবারই এমন অবস্থা হয়েছে যে আমি তাস করতে পারিনি। আমি মো ছাড়লে কী হবে বুঝতে পারছিলাম না বলে খুব চাপে ছিলাম।”

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন