সদ্য সংবাদ

 কালকিনিতে ১৩১ বাড়িতে লাল নিশানা লাগিয়ে দিলো প্রশাসন  করোনার বিরুদ্ধে সাইফুল ইসলাম শান্তির অভিযান শুরু  রংপুরে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  নরসিংদীতে হোম কোয়ারেন্টিনে ২০৫ প্রবাসী  কালকিনির বিভিন্ন হাট-বাজারে হাতধোয়ার জন্য বেসিন স্থাপন  পঞ্চগড়ে সাড়ে ৭শ’ পিস হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ  রংপুরে করোনা প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  পার্বতীপুরে শুধুমাত্র পূজার মধ্যদিয়ে ঐতিহ্যবাহী ‘বাহা পরব’ উদযাপিত  রংপুরে এরশাদের জন্মদিন পালিত  বিএফআরআইতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী এবং জাতীয় শিশু দিবস পালিত  করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে পঞ্চগড়ে জরুরি বৈঠক  আতঙ্কিত না হয়ে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে : সাদ এরশাদ এমপি  কালকিনিতে দুই প্রবাসীকে আর্থিক জরিমানা  পঞ্চগড়ে সীমিত পরিসরে মুজিববর্ষ পালিত  রংপুরে ৮টি রাস্তা পাকাকরণ ও ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু  কালকিনিতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে মুজিব উতসব পালিত  কালিয়াকৈর প্রেসক্লাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  রংপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে কীটনাশক মুক্ত সবজির চাষ!

তুর্কিশ এয়ারলাইন্সে বিনাপয়সায় ভ্রমণের সুযোগ

 Mon, May 6, 2019 10:45 PM
 তুর্কিশ এয়ারলাইন্সে বিনাপয়সায় ভ্রমণের সুযোগ

এশিয়া খবর ডেস্ক:: তুর্কিশ এয়ারলাইন্স দেশটিতে আন্তর্জাতিক ট্রানজিট যাত্রীদের জন্য ফ্রি শহর

ভ্রমণের সেবাটির পরিধি বাড়িয়েছে। এ অফারটি ইস্তানবুলের ট্রানজিট যাত্রীদের জন্য বিকালের বসফোরাস প্রণালী দেখার সুযোগ করে দেবে।

সোমবার এয়ারলাইন্সটির ভ্রমণ বিপণন ব্যবস্থাপক আবদুল্লাহ ইরমাজ সাংবাদিকদের বলেন, ইস্তানবুল প্রকল্পের আওতায় তুর্কিশ এয়ারলাইন্স ট্রানজিট যাত্রীদের জন্য দেশটির ঐতিহাসিক এবং প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভোগ করার জন্য এই ব্যবস্থা করা হয়েছে। এ সেবাটি পাবেন তারা, যারা ছয় থেকে ২০ ঘণ্টা ইস্তানবুল বিমানবন্দরে অবস্থান করবেন।

ইরমাজ আরও বলেন, আন্তর্জাতিক ট্রানজিট যাত্রীদের সন্তুষ্টি এবং তুরস্কের ভ্রমণব্যবস্থার প্রচার করার জন্য বসফোরাস প্রণালী ভ্রমণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এতে প্রতিদিন ছয়টি ভ্রমণ প্যাকেজের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে।

তিনি বলেন, তুর্কিশ এয়ারলাইন্স আন্তর্জাতিক ট্রানজিট যাত্রীদের জন্য ২০০৯ সাল থেকে ফ্রি শহর ভ্রমণের ব্যবস্থা করে আসছে।

২০০৯ সালে পাঁচ হাজার যাত্রী এ সেবাটি পেয়েছেন। বর্তমানে এ সেবাটি ২০১৯ সালে এসে প্রতি মাসে পাঁচ হাজারে পৌঁছেছে।

ইমরাজ বলেন, ২০১৮ সালে ৬৭ হাজার ৪০০ যাত্রী এ সেবাটির সুযোগ পেয়েছেন। এ সেবাটি অন্তত ৬৩ দেশের মানুষ পেয়েছেন।

এ সেবাটি ১ মে থেকে আরম্ভ হয়ে অক্টোবরের ৩১ তারিখ পর্যন্ত চলে।

সূত্র: ইয়েনি শাফাক

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন