সদ্য সংবাদ

 হঠাৎ এক মঞ্চে বাবু-শামীম-সেলিম ওসমান -আইভীর চ্যালেঞ্জ   মেয়র আইভীকে নিয়ে মাওলানা আব্দুল আউয়ালের বিভ্রান্তকর বক্তব্যের ব্যাখ্যা  ভালো কাজ করতে অনেক লোকের প্রয়োজন হয়  সৌদির বিমান বন্দরে হুতির হামলা, বিমানে আগুন  নির্বাচনের ক্রমবর্ধমান ঘটনায় উদ্বিগ্ন মাহবুব তালুকদার  অনেকের চেয়ে ভালোভাবে ভ্যাকসিন সংগ্রহ করেছি : প্রধানমন্ত্রী   মিয়ানমারের বিক্ষোভকারীদের হুশিয়ারি সামরিক জান্তার  থানার দায়িত্ব এসপিদের দিতে সুপারিশ করেছে দুদক  পুলিশ সুপার পদমর্যাদার ১২ কর্মকর্তাকে বদলি  রূপগঞ্জের কায়েতপাড়ায় ইউপি নির্বাচনকে ঘীরে প্রচরণায় মুখর  পঞ্চগড়ে কোভিড-১৯ টিকাদান কর্মসূচীর উদ্বোধন  ১৮ টি আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী -ডেপুটি স্পিকার  আসন্ন সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনে আইভীই পাচ্ছেন নৌকা   ভিসা নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার, বাধা কাটল দ. কোরিয়ায় প্রবেশের  রোহিঙ্গা সঙ্কটের একমাত্র সমাধান প্রত্যাবাসন : তুরস্ক   ২০ বছর বয়সেই কোটিপতি প্রতারক দীপু  নিরাপদ খাদ্য সরবরাহ নিশ্চিত করতে কাজ করছে সরকার : প্রধানমন্ত্রী  ভোটে অনীহা গণতন্ত্রের জন্য অশনিসংকেত, সংসদে বিরোধী এমপিরা   সুন্দর নারায়ণগঞ্জ গড়তে সকলের সহযোগিতা চান ডিসি   ছাত্রলীগ নেতা সুদীপ্ত হত্যার ‘নির্দেশদাতা’ আওয়ামী লীগ নেতা মাসুম

সংগীতশিল্পী খালিদ হোসেন আর নেই

 Wed, May 22, 2019 10:57 PM
    সংগীতশিল্পী খালিদ হোসেন আর নেই

এশিয়া খবর ডেস্ক:: প্রখ্যাত নজরুল সংগীতশিল্পী একুশে পদকপ্রাপ্ত খালিদ হোসেন আর নেই।

বেশ কিছুদিন ধরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় থাকার পর বুধবার রাত ১০.১৫ মিনিটে ইন্তেকাল করেন তিনি (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। বিষয়টি  নিশ্চিত করেছেন তার ছেলে আসিফ হোসেন।

রাজধানীর জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন শিল্পী খালিদ হোসেন।

ডা. উত্তম বড়ুয়ার অধীনে হাসপাতালটির করোনারি কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) তাকে চিকিৎসা দেয়া হয়।

হৃদরোগের পাশাপাশি কিডনি রোগসহ নানা জটিলতায় ভুগছিলেন এ গুণী শিল্পী।

এর আগে গত ১৪ মে (মঙ্গলবার) হাসপাতালে ভর্তি হন খালিদ হোসেন।

এদিন শিল্পীর পুত্রবধূ সুমি বলেন, উনার শারীরিক অবস্থা সংকটাপন্ন। চিকিৎসকরা বলেছেন, যে কোনো সময় দুঃসংবাদ আসতে পারে। আমাদের মানসিকভাবে প্রস্তুত থাকতে হবে।

খালিদ হোসেনের ছাত্র পরদেশী সিদ্দিক বলেন, কিছু দিন আগে স্যার ভারত থেকে চিকিৎসা নিয়ে ফিরেছেন। দেশে ফেরার সময় ভারতের চিকিৎসকরা বলেছিলেন- তার শারীরিক অবস্থা আরও খারাপের দিকে যাবে। হচ্ছেও তাই।

তিনি বলেন, উনাকে প্রতি মাসে একটি করে ব্যয়বহুল ইনজেকশন দেয়া হচ্ছিল। এখন সেটিও স্যারের শরীর সহ্য করতে পারছে না। ফলে তিনি আরও দুর্বল হয়ে পড়েছেন।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন