সদ্য সংবাদ

 সুদে কারবারীর অত্যাচারে হরিণাকুন্ডুর পান ব্যবসায়ী দিশেহারা!   শ্যামনগর গ্রামে আসামীদের হুমকীতে মামলার বাদী গ্রাম ছাড়া!   পঞ্চগড় সীমান্তে ভারতীয় ২৮ টি গরু আট করেছে পুলিশ  সাঘাটায় সতীতলা গ্রামে সংঘর্ষের ঘটনায় আহত ব্যাক্তির মৃত্যু  সাঘাটায় বজ্রপাতে এক ব্যক্তির মৃত্যু  আড়াইহাজারে পানিতে ডুবে ২ শিশুর মৃত্যু   প্রেম নিয়ে যা বললেন জয়া আহসান  যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে লড়বেন র‌্যাপার কানি ওয়েস্ট   ফতুল্লা কাশিপুরে বাল্য বিবাহ বন্ধ  ৬২ হাজার গ্রাহক অতিরিক্ত বিদ্যুৎ বিলের শিকার, জড়িত ২৯০ কর্মকর্তা-কর্মচারী  সংসদ চললে আদালতও চলতে পারে   করোনা ভাইরাসে দুই হাজার ছাড়ালো মৃত্যু, আক্রান্ত এক লাখ ৬২ হাজার   সীমান্ত হত্যায় সরকার টু পর্যন্ত করে না: রিজভী  বিদেশফেরত সাজাপ্রাপ্ত ২১৯ জনকে কারাগারে প্রেরণ   নারায়ণগঞ্জে বেড়েছে হত্যাকান্ড, প্রশ্ন উঠেছে নিরাপত্তা নিয়ে   কণ্ঠশিল্পী আসিফের বিরুদ্ধে গায়িকা মুন্নির মামলা   বদলিতে তদবির কালচার চিরতরে বিদায় করতে চান আই‌জি‌পি   জমি ও ফ্লাটের নিবন্ধন ফি কমলো  আকাশ ডিটিএইচ সংযোগে এক হাজার টাকা মূল্যছাড়  তাপসীর পান্নুর বিরুদ্ধে দলবাজির অভিযোগ করলেন কঙ্গনা

এবার শুরু করেছে প্রথম স্ত্রীকে যৌতুকের জন্য শারিরীক-মানষিক নির্যাতন

ঝিনাইদহের শৈলকুপা ফায়ার সার্ভিসে ড্রাইভার

 Sat, Nov 2, 2019 6:31 PM
এবার শুরু করেছে প্রথম স্ত্রীকে যৌতুকের জন্য শারিরীক-মানষিক নির্যাতন

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ: ঝিনাইদহের শৈলকুপা ফায়ার

সার্ভিসে ড্রাইভার পদে কর্মরত আলামীন চাকুরীবিধি লঙ্ঘন করে একের পর এক বিয়ে করে চলেছে। সে যৌতুকের দাবিতে প্রথম স্ত্রী কে প্রায়শ^ই বে-ধড়ক মারপিট করে আসছে। শারীরিক নির্যাতনের পাশাপাশি নিয়মিত মানষিক নির্যাতন করে আসছে। প্রথম স্ত্রীর অনুমতি বা সম্মতি না নিয়েই স্ত্রী-সন্তান ফেলে একের পর এক বিয়ে করে আসছে শৈলকুপা ফায়ার সার্ভিসে কর্মরত এই ড্রাইভার। প্রথম স্ত্রীর ঘরে তার ৯বছরের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। একবার প্রথম স্ত্রী নিরুপায় হয়ে ফায়ার সার্ভিসে লিখিত অভিযোগ দিলে সে ১৭ মাসের জন্য সাসপেন্ড হয়। কিন্তু থামেনি বিয়ের নেশা। চলতি মাসের ১৮ তারিখে আবারো তৃতীয় বিয়ে করেছে। শৈলকুপার মজুমদারপাড়া গ্রামে আবদুল খালেকের মেয়ে আফরোজা কে গত ১৮/১০/১৯ তারিখে ৫লক্ষ টাকা দেনমোহরে বিয়ে করে। বিয়ে রেজিস্ট্রেশন করেন শৈলকুপা পৌরসভার ১,২ ও ৩ নং ওয়ার্ডের কাজী আবদুল করিম। এর আগে সে কুড়িগ্রাম জেলায় এই আল আমিন আরেকটি বিয়ে করে। জানা গেছে, ঝিনাইদহের শৈলকুপা পৌরসভার পাঠান পাড়া গ্রামের মৃত. জলিল শেখের ছেলে আলামিন। দীর্ঘ দশ বছরের বেশী সময় সে শৈলকুপা ফায়ার সার্ভিসের ড্রাইভার হিসাবে কর্মরত রয়েছে। আর একই স্টেশনে দশ বছরের বেশী সময় থাকার সুবাদে বিভিন্ন অসামাজিক লোকের সাথে তার সক্ষতা গড়ে উঠেছে। আলামিনের প্রথম স্ত্রী শারমিন জানান বহু বিবাহ করা তার নেশা। এর আগে কুড়িগ্রামের একটা মেয়েকে সে বিয়ে করে তার পর থানায় জিডি করি এবং তার ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তাদের জানায় পরে তারা অভিযোগ তদন্ত করে ১৭ মাস সাসপেন্ড করে। সে আবারও আমার অনুমতি ব্যতিত আমাকে ও ৯বছরের সন্তান কে ফেলে আরেকটি বিয়ে করেছে। পারিবারিক ও সামাজিক ভাবে হেয় করার পাশাপাশি প্রায়শ^ই যৌতুকের দাবিতে নির্যাতন চালানো হয় বলে তিনি অভিযোগ করে বলেন আলামিনের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি করছি। আল আমিনের প্রথম স্ত্রী নির্যাতিত শারমিন শৈলকুপা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। এসব ঘটনা সম্পর্কে ঝিনাইদহ ফায়ার স্টেশনের উপ-পরিচালক নিজাম উদ্দিন জানান, শৈলকুপা ফায়ার স্টেশনে এসব ঘটনায় তার স্ত্রী লিখিত অভিযোগ করলে অধিদপ্তর কে জানানো হবে এবং প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া হবে। অভিযোগ উঠেছে শারমিন কে তার স্বামী নির্যাতন করে আসছে এতে উষ্কানী দিয়ে আসছে ভাসুর আল আমিনের ভাই প্রভাষক কাশেম এবং পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা। একই সাথে পাঠনপাড়া গ্রামের কিছু প্রভাবশালী মানুষ এসব ঘটনার সাথে জড়িত। তাদের নেপথ্য সহযোগীতায় এ ধরনের নির্যাতন ঘটে চলেছে। একের পর এক বিয়ে ও স্ত্রী কে নির্যাতন প্রসঙ্গে ফায়ার সার্ভিসে কর্মরত আল আমিনর বলেন, ‘লিখে যান যত ইচ্ছে লিখে যান আমার কিছুই হবে না’ ! এব্যাপারে শৈলকুপা থানার ওসি বজলুর রহমান বলেন অভিযোগ পেয়েছি বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।


Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন