সদ্য সংবাদ

  রোববার থেকে হিফজ মাদ্রাসা খোলার অনুমতি   সাংবাদিক রাশীদ উন নবী বাবু আর নেই   ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনা ৫০ হাজার টাকায় আপোষ রফা   এশিয়া কাপ বাতিল, বিশ্বকাপ না হলে আইপিএলের সম্ভাবনা : গাঙ্গুলী   ভার্চুয়াল আদালত পরিচালনায় সংসদে বিল পাস   ১২৫ বাংলাদেশিকে বিমান থেকে নামতে দিচ্ছে না ইতালি   দেশে করোনা শনাক্তে ফি আরোপ অমানবিক, আত্মঘাতী: টিআইবি  যুক্তরাষ্ট্রের জন্য সবচেয়ে বড় হুমকি চীন: এফবিআই  রূপকথাকেও হার মানায় রিজেন্টের সাহেদের উত্থান  জনকল্যাণকর কর্মসূচি দিয়ে মানুষের পাশে থাকবো : আমু  সংসদে দাঁড়িয়ে কাঁদলেন প্রধানমন্ত্রী  সাঘাটায় বাঙ্গালী নদীর পানি কমার সাথে ভয়াবহ ভাঙন  পঞ্চগড়ে প্রণোদনার দাবিতে কিন্ডারগার্টেন শিক্ষককদের কর্মসূচি  গাইবান্ধায় প্রথম আলো ট্রাষ্টের ত্রাণ বিতরণ   মুজিবনগর স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ অর্পন করলে দুই ডিসি   সাঘাটায় টাকা নিয়ে দলিল করে না দিয়ে উল্টো গাছ কর্তন  অস্ট্রেলিয়া থেকে সঙ্গা ও সপ্তক ফেরার পরই সমাহিত হবেন এন্ড্রু কিশোর  ঝিনাইদহে পথচারীদের মাঝে ট্রাফিক সার্জেন্ট মোস্তাফিজুর রহমানের মাস্ক বিতরণ  ঝিনাইদহে গাঁজাসহ আদালতে কর্মরত পুলিশ সদস্য আটক  ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট বলসোনারো করোনায় আক্রান্ত

পঞ্চগড়ে ১৫ দফা দাবিতে পেট্রোল পাম্পে ধর্মঘট

 Mon, Dec 2, 2019 6:09 PM
পঞ্চগড়ে ১৫ দফা দাবিতে পেট্রোল পাম্পে ধর্মঘট

পঞ্চগড় প্রতিনিধি॥: বাংলাদেশ পেট্রোল পাম্প ওর্নাস

 অ্যাসোসিয়েশনের ১৫ দফা দাবিতে ১ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহী, রংপুর ও খুলনায় অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে পঞ্চগড় জেলার ১৮টি পাম্পে জ্বালানি তেল উত্তোলন, পরিবহন ও বিপণন কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। 

রবিবার  ডিসেম্বরসকাল থেকেই পঞ্চগড় জেলার পাঁচটি উপজেলায় এ ধর্মঘট শুরু হয়। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন গ্রাহকরা। মোটরসাইকেল চালক নুরে আলম সিদ্দিকী বলেন, সকালে অফিসে যাওয়ার জন্য পাম্পে আসি তেল নিতে। কিন্তু এসে দেখি তেল বিক্রি বন্ধ। খুব ঝামেলায় পড়েছি। কীভাবে অফিসে যাব এখন।

ট্রাক চালক হুমায়ুন বলেন, দূরের পথ, মাল ভর্তি ট্রাক। পাম্পে এসে দেখি তেল বিক্রি বন্ধ। কীভাবে সময়মতো মাল পৌঁছাব, এ নিয়ে খুব টেনশনে আছি।

পাম্প শ্রমিক আলতাফ হোসেন বলেন, ভোর থেকে আমরা এ কর্মবিরতি শুরু করেছি। ১৫ দফা দাবি না মানলে মালিকরা বাঁচতে পারবে না। আর মালিকরা না বাঁচলে আমাদের কীভাবে তারা বেতন দিয়ে রাখবেন। তাই সরকারের কাছে দাবি, যাতে দ্রুত সম্ভব আমাদের এ দাবি মেনে নেওয়া হোক।

তেঁতুলিয়া ফিলিং স্টেশনের মালিক পক্ষের একজন আবুল কালাম আজাদ বলেন, ভোর থেকে তেল বিক্রি বন্ধ রেখেছি। দাবি না আদায় হওয়া পর্যন্ত পাম্প বন্ধ থাকবে।মোটর সাইকেলের  মালিক রহমান বলেন, কি যে হইলো পেট্রোল পাম্পেও ধর্মঘট।এভাবে চলতে থাকলে তো জিনিসপত্রের দাম বাড়িয়ে দিবে দোকানদাররা

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন