সদ্য সংবাদ

 কেরানীগঞ্জে প্লাস্টিক কারখানায় অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১, দগ্ধ ২৮  আমরা এখনও বিচার বিভাগকে বিশ্বাস করি: রিজভী  মিয়ানমারকে মানবাধিকার লঙ্ঘন বন্ধ করতে হবে: মিলার  জনগণকে সাথে নিয়ে অগ্নিসন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন করতে সক্ষম হয়েছি : আইজি  অমিত শাহর বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় যা বললেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী  কালিয়াকৈরে অজ্ঞাত যুবককে কুপিয়ে হত্যা  নাগেশ্বরী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ নবাগত চিকিতসকদের যোগদান  ‘মানবতার বন্ধনে রংপুর’ কর্তৃক মাদ্রাসায় খাবার বিতরণ  দেশে মূর্খের শাসন চলছে: ব্যারিস্টার মইনুল  থানায় জিডি করলেই আসবে ঢাকা রেঞ্জের ফোন  ফতুল্লায় কিশোরী গণধর্ষণে ৬ জন গ্রেফতার   এস কে সিনহার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল  আদালতের কাঠগড়ায় পাথরের মতো বসে ছিলেন সু চি  পার্বতীপুরে রেলওয়ে জেলা স্কাউটস এর কাউন্সিল অনুষ্ঠিত  কালিয়াকৈরে কলেজ ছাত্র হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধন  ভ্যাটের টাকায় দেশ উন্নয়নের উচ্চ শিখরে পৌঁছে যাবে  কুয়াশা পড়ছে মাঝ রাতে দিনে রোদ  নবীনগরে স্থানীয় এনজিও হোপের ২১ তম সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত  খুলনা জেলা ও নগর আওয়ামীলীগের সম্মেলন কাল  কালিয়াকৈরে আর্ন্তজাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকয়া দিবস পালিত

পঞ্চগড়ে ১৫ দফা দাবিতে পেট্রোল পাম্পে ধর্মঘট

 Mon, Dec 2, 2019 6:09 PM
পঞ্চগড়ে ১৫ দফা দাবিতে পেট্রোল পাম্পে ধর্মঘট

পঞ্চগড় প্রতিনিধি॥: বাংলাদেশ পেট্রোল পাম্প ওর্নাস

 অ্যাসোসিয়েশনের ১৫ দফা দাবিতে ১ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহী, রংপুর ও খুলনায় অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে পঞ্চগড় জেলার ১৮টি পাম্পে জ্বালানি তেল উত্তোলন, পরিবহন ও বিপণন কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। 

রবিবার  ডিসেম্বরসকাল থেকেই পঞ্চগড় জেলার পাঁচটি উপজেলায় এ ধর্মঘট শুরু হয়। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন গ্রাহকরা। মোটরসাইকেল চালক নুরে আলম সিদ্দিকী বলেন, সকালে অফিসে যাওয়ার জন্য পাম্পে আসি তেল নিতে। কিন্তু এসে দেখি তেল বিক্রি বন্ধ। খুব ঝামেলায় পড়েছি। কীভাবে অফিসে যাব এখন।

ট্রাক চালক হুমায়ুন বলেন, দূরের পথ, মাল ভর্তি ট্রাক। পাম্পে এসে দেখি তেল বিক্রি বন্ধ। কীভাবে সময়মতো মাল পৌঁছাব, এ নিয়ে খুব টেনশনে আছি।

পাম্প শ্রমিক আলতাফ হোসেন বলেন, ভোর থেকে আমরা এ কর্মবিরতি শুরু করেছি। ১৫ দফা দাবি না মানলে মালিকরা বাঁচতে পারবে না। আর মালিকরা না বাঁচলে আমাদের কীভাবে তারা বেতন দিয়ে রাখবেন। তাই সরকারের কাছে দাবি, যাতে দ্রুত সম্ভব আমাদের এ দাবি মেনে নেওয়া হোক।

তেঁতুলিয়া ফিলিং স্টেশনের মালিক পক্ষের একজন আবুল কালাম আজাদ বলেন, ভোর থেকে তেল বিক্রি বন্ধ রেখেছি। দাবি না আদায় হওয়া পর্যন্ত পাম্প বন্ধ থাকবে।মোটর সাইকেলের  মালিক রহমান বলেন, কি যে হইলো পেট্রোল পাম্পেও ধর্মঘট।এভাবে চলতে থাকলে তো জিনিসপত্রের দাম বাড়িয়ে দিবে দোকানদাররা

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন