সদ্য সংবাদ

 চাটখিল মহিলা ডিগ্রি কলেজের নবীন বরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত  চট্টগ্রাম বিভাগীয় পর্যায়ে জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতার উদ্বোধন  রংপুরে ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রে স্বাভাবিক প্রসব সেবা জোরদার করণে অবহিতকরণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত  ঝিনাইদহ শহরের আলিফ ও রিমা বেকারিতে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের জরিমানা  শৈলকুপায় দৌড় প্রতিযোগিতায় প্রথম হয়ে খেলার মাঠেই স্কুলছাত্রের মৃত্যু!   সাভারে বাসা ভাড়া দিতে না পারায় স্বামীকে বেঁধে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণ  শিশু হত্যাকান্ডে জড়িতদের সর্ব্বোচ্য শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন  মামলার উদ্দেশ্য রাজনৈতিক হয়রানি: ইশরাক  দৌলতদিয়া যৌনপল্লির শিশুদের মধ্যে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ করলেন ডিআইজি  বিদেশে প্রশিক্ষণের নামে ১২ কোটি টাকা লোপাট: দুদকে তলব   অস্ট্রেলিয়ায় পাঁচ দিনে গুলি করে ৫০০০ উট হত্যা  জনগণের আদালতে এ সরকারের বিচার হবে: ফখরুল   আলোর পথে বাংলাদেশ: সংসদে প্রধানমন্ত্রী  রাশিয়ার প্রধানমন্ত্রী দিমিত্রি মেদভেদেভের পদত্যাগ  চট্টগ্রাম নগরীর শিক্ষার্থীদের জন্য প্রধানমন্ত্রীর দেয়া ১০টি বাস চালু হচ্ছে  পঞ্চগড়ে টেম্পারিং ও অবৈধ পন্থায় বিদ্যূত চুরির ঘটনায় তোলপাড়  কালকিনিতে ফিল্মী স্টাইলে কিশোর অপহরণ  গাইবান্ধা ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন ও আশার আলো প্রভাতী সংস্থার বাদিয়াখালী ব্রাঞ্চ অফিস উদ্বোধন  আড়াইহাজারে এক বৃদ্ধাকে জিম্মি করে স্বর্ণ ও টাকা ছিনতাই  আড়াইহাজারে র‌্যাবের অভিযান, ৬০ কেজি গাজাসহ গ্রেফতার ৬

‘গো ব্যাক মোদি’ স্লোগানে গর্জে উঠল কলকাতার রাজপথ

 Sat, Jan 11, 2020 9:40 PM
‘গো ব্যাক মোদি’ স্লোগানে গর্জে উঠল কলকাতার রাজপথ

এশিয়া খবর ডেস্ক:: দু'দিনের সফরে শনিবার কলকাতায় এলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি,

 আর তার মাঝে গর্জে উঠল কলকাতার রাজপথ। নাগরিকত্ব আইন, এনআরসি আর এনপিআরের বিরুদ্ধে ‘গো ব্যাক মোদি’ স্লোগানে সোচ্চার কলকাতার রাজপথ থেকে অলিগলি।

অন্যদিকে শনিবার বিকেলে মোদির সঙ্গে একান্ত বৈঠক করে ধর্মতলায় বিজেপি বিরোধী বিক্ষোভে বসেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এদিন কলকাতার উত্তর থেকে দক্ষিণ, সর্বত্রই মোদি বিরোধিতায় পথে নামেন বাম-নকশালপন্থী ছাত্ররা। গোলপার্ক, যাদবপুর, ধর্মতলা, কলেজ স্ট্রিটে, হাতিবাগান  এদিন মোদির সফরের বিরোধিতায় বিক্ষোভ করেন। সড়কে লেখা হয় ‘নো এনআরসি, নো সিএএ’। কোথাও ‘গো ব্যাক মোদি’ পোস্টার নিয়ে আন্দোলনে সামিল হন শিক্ষার্থীরা। জেএনইউ-র হামলা, সিএএ, এনআরসি, কর্মসংস্থানের দাবি নিয়েও বিক্ষোভ করেন তারা। গান, স্লোগানে মোদিকে ফেরত পাঠানোর দাবিও করা হয়। এদিন কলকাতাসহ রাজ্যজুড়ে মোট ৫০০ জায়গায় বিক্ষোভ করা হয়।

বিকেলের পর রাজভবনের দিকে যান বাম ছাত্র-যুব ও অতিবামপন্থী সংগঠনগুলি। লেনিনমূর্তির নীচে অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচি করে সিপিএমের। এদিন বিক্ষোভকারীদের হাতে ছিল জাতীয় পতাকা এবং কালো পতাকা। সন্ধ্যায় কলকাতায় জুড়ে মানববন্ধন করে সিপিএম।

এর আগে কলকাতা বিমানবন্দরে ৩টা ২০ মিনিটে নেমে হেলিকপ্টারে মোদি কলকাতা শহরে প্রবেশ করেন। বিমানবন্দরে তাকে স্বাগত জানান কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম। রেসকোর্সের হেলিপ্যাডে নেমে মোদি সোজা চলে যান রাজভবনে। সেখানে তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে বৈঠক করেন ২০ মিনিট।

বৈঠক শেষে মমতা বলেন, ‘রাজ্যের আর্থিক দাবি-দাওয়ার কথা বলেছিল এবং সেই সঙ্গে সিএএ, এনআরসি ও এনআরপির বাতিলের দাবি করেছি।’

এরপরেই মমতা চলে যান ধর্মতলায় বিজেপি বিরোধী অবস্থান মঞ্চে। সেখানে তিনি বিজেপির বিরুদ্ধে বক্তব্য রাখেন। অন্যদিকে, মোদি বিবাদিবাগে কারেন্সি ভবনে একটি প্রর্দশনী উদ্বোধনে যান। এখানে মোদি বলেন, ‌‘বাংলার মাটিকে আর বাংলার মনিষীদের প্রনাম জানাচ্ছি। বেলুড় মঠ আমায় টেনে এনেছে।’

এরপর মোদি মিলোনিয়াম পার্কে হাওড়া সেতুর লাইট অ্যান্ড সাউন্ড প্রর্দশনীর উদ্বোধন করেন। তারপর যান বেলুড়মঠে। সেখানে তিনি রাত্রিবাস করেন। রোববার সকালে কলকাতা পোর্টট্রাস্টের ১৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে নেতাজি ইনডোর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে দুপুরে দিল্লি ফিরে যাবেন তিনি।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন