সদ্য সংবাদ

  ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডে বিশাল কেলেঙ্কারি  ‘কী কথা হয়েছে ফোনে?’   প্রকাশ্যে সিগারেট টানছেন সৌদি নারীরা!  ৫০ দিনে কেউ ১ কোটি, আমি হারিয়ে যাইনি: শিল্পা  নারায়ণগঞ্জ সবজির গাড়িতে বিপুল সংখ্যক ফেনসিডিল, আটক ২   দেশে সিনেমা হল এখন ৬০টি!  চাকরির পেছনে ছোটার মানসিকতা পরিবর্তন করতে হবে: প্রধানমন্ত্রী   আড়াইহাজারে ২ মাস পর রোকসানা হত্যা রহস্য উদঘাটন  বিশ্বের দূষিত বাতাসের শহরের তালিকায় দ্বিতীয় ঢাকা  কাশ্মীরিদের সংগ্রামকে পুরোপুরি সমর্থন করছেন মালয়েশিয়া  পঞ্চগড়ে রবিউল আলম সাবুলের সংবাদ সম্মেলন  কালিয়াকৈরে গণমাধ্যম ও সমাজভিত্তিক সংগঠনের সাথে পরামর্শ সভা অনুষ্ঠিত  রংপুর পলিটেকনিক শিক্ষক-কর্মচারীদের মানববন্ধন  শাজাহান খানের বিরুদ্ধে ইলিয়াস কাঞ্চনের ক্ষতিপূরণ মামলা  নারায়ণগঞ্জে ডাকাতি, মতলব থেকে আদনানকে গ্রেফতার করেছে সিআইডি  বিদেশ ভ্রমণে ১০ হাজার ডলার সঙ্গে নিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের শর্ত  তুর্কি সৈন্যের গায়ে আঁচড় লাগলে সিরিয়ার রক্ষা নেই’  সংসার করতে মালয়েশিয়া যাচ্ছিল রোহিঙ্গা তরুণীরা!  প্রধানমন্ত্রী বৃহস্পতিবার কালিয়াকৈরে আসছেন  মুজিববর্ষে দেশের সকল ঘরে আলো জ্বালব : প্রধানমন্ত্রী

পঞ্চগড়ে টেম্পারিং ও অবৈধ পন্থায় বিদ্যূত চুরির ঘটনায় তোলপাড়

 Wed, Jan 15, 2020 8:28 PM
পঞ্চগড়ে টেম্পারিং ও অবৈধ পন্থায় বিদ্যূত চুরির ঘটনায় তোলপাড়

পঞ্চগড় প্রতিনিধি॥: নর্দান ইলেকট্রিসিটি সাপ্লাই কোম্পানি

লিমিটেড (নেসকো) পঞ্চগড়ের জগদলে মিটার টেম্পারিং ও অবৈধ পন্থায় বিদ্যূত চুরির ঘটনায় তোলপাড়। নেসকো তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী দিনাজপুরের ঘটনাস্থল পরির্দশন।‘ এনিয়ে গত ১৩ জানুয়ারি/২০ এশিয়া ২৪. কম ও  ১২ জানুয়ারি/২০ ‘‘ দৈনিক খবর দৈনিক জনবাণী ও দৈনিক উত্তর বাংলা’ পত্রিকায়  সংবাদ প্রকাশিত হয়’’। সদর উপজেলার জগদল বাজারে আব্দুস ছাত্তার ( মিস্ত্রী)র্দীঘ প্রায় ৫ বছর ধরে মিটার টেম্পারিং সহ নানা কৌশলে এই বিদ্যূত চুরি করে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ থাকলেও কর্তৃপক্ষ আইনানুগ ব্যবস্থা না নিয়ে শুধুমাত্র মিটার সংযোগ বিছিন্ন করার বিষয়টি গনমাধ্যমে প্রকাশিত হলে মঙ্গলবার (১৪জানুয়ারি) পঞ্চগড়ের জগদলে ঘটনাস্থল পরির্দশনে আসেন নেসকোর দিনাজপুরের তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মো. রবিউল ইসলাম । তার সাথে ছিলেন নেসকোর ঠাকুরগাওঁ নির্বাহী প্রকৌশলী মো. গোলাম সারোয়ার ও নেসকো দিনাজপুরের আঞ্চলিক একাউন্স অফিসের উপ-পরিচালক মো.রনি আলম বলে জানা গেছে। এ সময় ওই  তদন্ত টিমের সাথে নেসকো পঞ্চগড় এর নির্বাহী প্রকৌশলী ও ছিলেন।

এসময় অবৈধ বিদ্যূত সংযোগ বিছিন্ন সহ মিলের অভ্যন্তরে তার ছেঁড়া ও  ইজিবাইক ও চার্জার রিকসা চার্জ দেওয়ার অবিভযোগের সত্যতা পান তদন্ত দল।স্থানিয় ক্ষুব্ধ জনগন ছাত্তারের বিষয়ে অভিযোগ করেন। এর আগের দিন পঞ্চগড় নেসকোর নিবাহী প্রকৌশলী মো. আতিকুর রহমান ঘটনাস্থল পরির্দশন করেন এবং মিলের ভিতরে ছেঁড়া তার ও অবৈধ সংযোগের ছবি তুলে নেন। সূত্র জানায়,ওই দিনই মো. আলেফুল ইসলামকে জগদল এলাকা হতে সরিয়ে বিদ্যূুত লাইন পঞ্চগড়-টুতে বদলি করেন।বিষয়টি জানতে নেসেকা পঞ্চগড় এর নির্বাহী প্রকৌশলীর সাথে কথা বলতে মুঠো ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেন নি।জগদল এলাকার স্থানিয় জনগন ও কতিপয় মিলারদের অভিযোগে জানা যায়, মোঃ আব্দুস ছাত্তার (মিস্ত্রী) র্দীঘ ৫ বছর ধরে বিদ্যূত সংযোগে অবৈধপন্থায় তারে হুক লাগিয়ে এবং মিটার টেম্পারিং করে মিল এবং ইজিবাইক ও চার্জার রিকসায় চার্জ দিয়ে আসছে। এসময় চার্জ প্রদানকারি ইজিবাইক ও চাজর্অর রিকসার মালিকদের নিকট থেকে জন প্রতি একশো টাকা করে আদায় করেন। রাত ১০/ ১১ টার পর প্রায় ২০ থেকে ৩০ টি করে এসব যানে চার্জ  দেয়া হয়।

 এই অবৈধ পন্থায় রাতারাতি লাথ লাখ টাকার বিদ্যূত চুরি করে মিস্ত্রী বলে পরিচিত আব্দুস ছাত্তার। বিষয়টি জগদলে জনগন ও মিলারদের কাছে দৃষ্টি হয় এবং আলোচনা- সমালোচনার পর তা এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে ‘ নেসকো নির্বাহী প্রকৌশলী পঞ্চগড়  অফিসের উপ-সহকারি প্রকৌশলী জগদল এলাকার দায়িত্বে থাকা মো. আলেফুল ইসলাম বিষয়টি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য তার কাছে মোটা অঙ্কের ঘূষ আদায় করেন ও মাসোয়ারা নেন এবং নামমাত্র মিটারটির সংযোগ বিছিন্ন করে দেয়। এ বিষয়ে তখন আলেফুল ইসলামের সাথে এ প্রতিনিধি কথা বললে তিনি বলেন ‘ যা পেয়েছেন তাই লিখেন’।এদিকে তুলারডাঙ্গায় একটি রাইস মিলে সংযোগ দেওয়ার সময় আলেফুল ইসলাম ও ঠিাকাদারের প্রতিনিধি সহ ৪ লাখ টাকা হাতিয়ে নেন বলে একজন প্রতিষ্ঠিত মিল ব্যবসায়ি জানিয়েছেন। 

তিনি এও জানান, তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী আসার পরদিন বুধবার মো. আলেফুুল ইসলাম নিজেকে বাঁচাতে দিনাজপুর অফিসে যান। এদিকে অপর এক অভিযোগে জানা গেছে,জগদল বাজারে জনৈক  ওয়েলডিং দোকান মালিক মোস্তফার নিকট মিটার টেম্পারিং এর অভিযোগে ৭০ হাজার টাকা ঘূষ আদায় করেন। এরপর বিষয়টি একজন স্থানিয় মিল ব্যবসায়ি মিমাংসা করে দেন।এছাড়া তার বিরুদ্ধে লাইন সংযোগ প্রদানে ঘূষ লেনদেনের অনেক অভিযোগ উঠেছে। এ বিষয়েমো. আলেফুুল ইসলামের সাথে বার বার মুঠোফোনে কথা বলার চেষ্টা করলেও তিনি ফোন রিসিভ করেন নি।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন