সদ্য সংবাদ

 কালকিনিতে ১৩১ বাড়িতে লাল নিশানা লাগিয়ে দিলো প্রশাসন  করোনার বিরুদ্ধে সাইফুল ইসলাম শান্তির অভিযান শুরু  রংপুরে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  নরসিংদীতে হোম কোয়ারেন্টিনে ২০৫ প্রবাসী  কালকিনির বিভিন্ন হাট-বাজারে হাতধোয়ার জন্য বেসিন স্থাপন  পঞ্চগড়ে সাড়ে ৭শ’ পিস হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ  রংপুরে করোনা প্রতিরোধে মাস্ক বিতরণ  পার্বতীপুরে শুধুমাত্র পূজার মধ্যদিয়ে ঐতিহ্যবাহী ‘বাহা পরব’ উদযাপিত  রংপুরে এরশাদের জন্মদিন পালিত  বিএফআরআইতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী এবং জাতীয় শিশু দিবস পালিত  করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে পঞ্চগড়ে জরুরি বৈঠক  আতঙ্কিত না হয়ে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে : সাদ এরশাদ এমপি  কালকিনিতে দুই প্রবাসীকে আর্থিক জরিমানা  পঞ্চগড়ে সীমিত পরিসরে মুজিববর্ষ পালিত  রংপুরে ৮টি রাস্তা পাকাকরণ ও ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু  কালকিনিতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে মুজিব উতসব পালিত  কালিয়াকৈর প্রেসক্লাবে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  রংপুরে যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালিত  পঞ্চগড়ে কীটনাশক মুক্ত সবজির চাষ!

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডে বিশাল কেলেঙ্কারি

 Sun, Feb 16, 2020 11:02 PM
 ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডে বিশাল কেলেঙ্কারি

স্পোর্টস ডেস্ক:: ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রধান নির্বাচক এমএসকে প্রসাদ

সরে দাঁড়ালেও নতুন নির্বাচকদের নাম এখনও ঘোষণা করেনি ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই)। প্রধান নির্বাচক নিয়োগের প্রক্রিয়া চলা অবস্থাই সামনে এল বড় কেলেঙ্কারি।

এমএসকে প্রসাদের সরে দাঁড়ানো পদে বসার জন্য আবেদনপত্র পাঠিয়েছেন জাতীয় দলের সাবেক স্পিনার লক্ষ্মণ শিবরামকৃষ্ণণ। বিসিসিআইকে তার পাঠানো মেইল আশ্চর্যজনকভাবেই মুছে গেল। আর এ নিয়ে ভারতীয় ক্রিকেট মহলে তোলপাড়।

বিসিসিআইয়ের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, শিবরামকৃষ্ণণ ২২ জানুয়ারি বিকাল ৪.১৬টায় ই-মেল পাঠিয়েছিল। আবেদন পাঠানোর ডেডলাইন ছিল ২৪ জানুয়ারি। আসলে নির্বাচক পদে আবেদন করার জন্য বিশেষ একটি ই-মেল অ্যাড্রেস নতুন করে তৈরি করা হয়েছিল। ২১ জন আবেদনও করেছিলেন ওই ই-মেলে।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের একটি সূত্রে জানা যায়, অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে এমনটি করা হয়েছে। এই বিষয়ে পূর্ণ তদন্ত হওয়া প্রয়োজন। শিবরামকৃষ্ণণের সঙ্গে ডেকে এই বিষয়ে কথা বলা উচিত। দরকার হলে ওর সেন্ট ই-মেল খতিয়ে দেখা হোক।

জানুয়ারি মাসে প্রধান নির্বাচক এমএসকে প্রসাদ সরে যাওয়ার পরে একাধিক সাকেব তারকা প্রধান নির্বাচক হওয়ার দৌড়ে এগিয়ে রয়েছেন। তাদের মধ্যে অভিজ্ঞতার দিক থেকে অনেকটাই এগিয়ে লক্ষ্মণ শিবরামকৃষ্ণণ। অথচ তাকে নিয়েই এমন বিতর্ক।

সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন