সদ্য সংবাদ

  ‘তিশা প্লাস’ বাসের দরজা-জানালা বন্ধ করে তরুণীকে গণধর্ষণ  'ঊর্মিলাকে পর্ন অভিনেত্রী' বললেন কঙ্গনা  যে যাই বলুক, আসলে মানুষ‌‌ পুলিশকে ভালোবাসে   আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে কাজ করবেন, সরকারি কর্মচারীদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী  ট্রাম্পের নারী কেলেংকারি ফাঁস, মুখ খুললেন মডেল  দেশের অর্থনীতি ধ্বংস করার চেষ্টা করছে ভারত : জাফরুল্লাহ  তিতাস-ডিপিডিসি ও মসজিদ কমিটি দায়ী: প্রশাসনের তদন্ত প্রতিবেদন  তাহিরপুর-বাদাঘাট সড়কে সীমাহীন র্দূভোগ:দেখার কেউ নেই   মসজিদে অগ্নিকাণ্ডে নিহত পরিবারের মাঝে জেলা আ:লীগের আর্থিক সহায়তা প্রদান   ধর্ষণ মামলায় শিল্পপতি ছেলের যাবজ্জীবন কারাদন্ড   পঞ্চগড়ে চা পাতা চুরির অভিযোগ,  প্রজ্ঞাপন দিয়ে হাটহাজারী মাদরাসা বন্ধ ঘোষণা  ঝিনাইদহে সন্তান নিখোঁজ: খুঁজছে বাবা-মা   ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার কক্সবাজারে বদলি, যোগদান করলেন মুনতাসিরুল ইসলাম  ইসরাইল-ফিলিস্তিন অশান্তি উসকে দিল ট্রাম্পের ‘শান্তি চুক্তি’  পুলিশ হেফাজতে মৃত্যু: ক্ষতিপূরণের ২ লাখ টাকা জমা দিলেন এসআই জাহিদের পরিবার  আ: লীগের বরকত-রুবেলের দুটি প্রতিষ্ঠানের ২৫ কার্যাদেশ বাতিল   সেই শিশু ইয়ামিনকে জার্সি-ব্যাট দিলেন মুশফিক   জিম্মি করে ব্যাংক লুটের চেষ্টা, বোমাসহ যুবক আটক  কক্সবাজারের এসপিসহ পুলিশের ৬ কর্মকর্তা বদলি

নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস দালাল চক্রে জিম্মি

মূলহোতা বাবু ও আলমগীরকে গ্রেফতারের দাবি

 Mon, Sep 7, 2020 11:42 PM
  নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস দালাল চক্রে জিম্মি

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:: নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট দালাল মুক্ত হয়নি।

 জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে গত মঙ্গলবার ৭ দালাল গ্রেফতার হলেও এখনও মূলহোতা আলমগীর ও বাবুর নেতৃত্বে প্রায় দেড়শতাদিক দালাল তাদের অপকর্ম করেই যাচ্ছে। এসব দালালদের গ্রেফতারের পাশাপাশি অসাধু কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধেও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার দাবি ভূক্তভোগীদের।  
জানা যায়, নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসে দালাল চক্রের হাতে জিম্মি পাসপোর্ট করতে আসা আবেদনকারীরা। এখানে দালাল ছাড়া কোন পাসপোর্ট করা যায় না। দালালদের দৌরাত্মের কারণে ভূক্তভোগীরা অতিষ্ঠ এমন অভিযোগ উঠে। এছাড়াও করোনা ভাইরাস বিস্তার রোধে পাসপোর্ট অধিদপ্তর নতুন পাসপোর্ট আবেদন গ্রহণ বন্ধ থাকলেও দালালরা নতুন পাসপোর্ট আবেদন জমা দিয়েছে এ অফিসে।

এমন অভিযোগের ভিত্তিতে নারায়ণগঞ্জ জেলা গোয়েন্দা পুলিশ এ অভিযান চালায়। এসময় পুলিশ আল আমিন, জিসান, মাসুদুর রহমান, আফজাল ইসলাম ওরফে পারভেজ, আনিসুজ্জামান রাশেদ, রিয়াদ হোসেন, মেহেদী হাসানকে গ্রেফতার করে। এসময় পুলিশ ৫টি পাসপোর্ট, ২টি ল্যাপটপ, ২টি ডেস্কটপ, ১টি প্রিন্টার, ২টি ভুয়া সিল ও নগদ ৭৭ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। সিল দুটিতে দুজন সরকারি ডাক্তারের নাম লেখা রয়েছে। তাদের ৫ দিনের মিরান্ডে নিয়েছে ডিবি পুলিশ। এতে ভূক্তভোগীরা কিছু আশস্ত হলেও পুরোপুরি দালাল মুক্ত হয়নি পাসপোর্ট অফিস। এ অফিসের কিছু অসাধু কর্মকর্তাদের যোগসাজশে দালালদের মূলহোতা আলমগীল ও বাবু তাদের প্রায় দেড় শতাধিক সহযোগিদের নিয়ে অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছে।  দালাল চক্রটি এখানে রোহিঙ্গাদের পাসপোর্ট করানোসহ ভূয়া নাম ঠিকানা, ভূয়া সিল ও সনদ পত্র এমনকি ভূয়া এনআইডি, থানার জিডি ব্যবহার করে জালিয়াতি করছে বলে ভূক্তভেঅগীদের দাবি।

ভূক্তভোগীরা আরও জানায়, ইতিপূর্বে এ পাসপোর্ট অফিস থেকে রোহিঙ্গাদের পাসপোর্ট করার অভিযোগ রয়েছে আলমগীর, বাবু ও শ্যামলের বিরুদ্ধে। তারপরও সংশ্লিষ্টরা তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা না নেয়ায় আলমগীর ও তার সহযোগিরা বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। তাদেরকে দ্রুতই গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনার দাবি এলাকাবাসীর। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবির এসআই মনির হোসেন জানান, গ্রেফতারকৃতদের রিমান্ড শেষে আদালতে পাঠানো হবে।

তাদের দেয়া তথ্যমতে এই চক্রের মুল হোতা আলমগীর (বড়), বাবু, আলমগীর (ছোট), শ্যামল, মানিক, মুসা, সালাউদ্দিন,  মামুন, সুমন, রাশেদ, খায়ের, জনি, শান্তা ও পারবেজকে গ্রেফতার করতে একাধিক বার অভিযান চালিয়েছে ডিবি পুলিশ। এদের আটক করে পরবর্তী পদক্ষেপ নেয়া হবে বলেও তিনি জানান। ডিবির ওসি আলমগীর হোসেন জানান, পাসপোর্ট অফিস নিয়ে অনেক অভিযোগ পেয়ে এসপি স্যারের নির্দেশে আমরা অভিযান চালিয়ে ৭ জন দালালকে আটক করি।

দালালরা পাসপোর্ট করতে আসা লোকজন থেকে প্রতি পাসপোর্টে দশ হাজার টাকা থেকে এক লাখ টাকা নেওয়ার তথ্য পেয়েছি। তিনি আরো জানান, পাসপোর্ট অফিসের দালাল চক্রকে আটক করতে আমাদের অভিযান চলমান আছে।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন