সদ্য সংবাদ

 সিদ্ধিরগঞ্জে ১৮ ফার্মেসিকে সাড়ে ৩ লাখ টাকা জরিমানা  মেহেদি অনুষ্ঠানের ছবি শেয়ার করলেন কাজল  ফ্রান্সে মুহাম্মদকে ব্যাঙ্গাত্ব করার প্রতিবাদে পঞ্চগড়ে বিক্ষোভ   ৩৫ টাকার আলু নিচ্ছে ৪৫   ইসরাইলি-যুক্তরাষ্ট্রের ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনিকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে : হামাস  ১০ নভেম্বর থেকে ৬৪ জেলায় ই-পাসপোর্ট  চর এলাকার মানুষের উন্নয়নে বোর্ড করার দাবি -ডেপুটি স্পিকার  আড়াইহাজারে ইয়াবা সহ গ্রেফতার ২   ফ্রান্সে মহানবীকে ব্যঙ্গ করায় নবীনগরে বিক্ষোভ   চোর যখন সৎ!   ‘শহর ও গ্রামের ব্যবধান কমাতে সরকার কাজ করছে’   নারায়ণগঞ্জ সদর থানার সাবেক ওসি কামরুল কারাগারে  দুর্নীতি-জালিয়াতি: ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল জান্নাতুলকে দুদকে তলব   সড়কে মৃত্যুর ক্ষতিপূরণ ৫ লাখ টাকা  অভিনেত্রী মালভিকে কুপিয়েছেন প্রযোজক  কিশোরীকে গণধর্ষণের মামলায় ডিবির এএসআই গ্রেপ্তার  আওয়ামী লীগ চায় না ভোটাররা কেন্দ্রে আসুক : বিএনপি  সাকিবের নিষেধাজ্ঞায় কষ্ট পেয়েছিলাম  র‌্যাবের শীর্ষ কমান্ডারদের উপর নিষেধাজ্ঞা জারির জন্য যুক্তরাষ্ট্রের সিনেটরদের আহ্বান  সু চিকে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে বলল যুক্তরাষ্ট্র

নাসিকের ৭৫৫ কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা

 Tue, Oct 13, 2020 8:46 PM
নাসিকের ৭৫৫ কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:: নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের (নাসিক) ২০২০-২১ অর্থ বছরের

 রাজস্ব ও উন্নয়নসহ মোট ৭৫৫ কোটি ৭৩ লক্ষ ৪৩ হাজার ১৪৪ টাকার বাজেট ঘোষণা করেছেন মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী। গতকাল মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১২টায় আলী আহাম্মদ চুনকা নগর পাঠাগার ও মিলনায়তনে এ বাজেট ঘোষণা করা হয়। প্রস্তাবিত বাজেটে রাজস্ব ও উন্ন্য়ন খাতে মোট ৬৫৮ কোটি ৬৬ লক্ষ টাকা আয় এবং মোট ৬৫১ কোটি ১৭ লক্ষ টাকা ব্যয় ধরা হয়েছে। বছর শেষে ঘোষিত বাজেটে প্রায় সাড়ে  ৭ কোটি টাকা উদ্বত্ত থাকবে।   
গত ২০১২ সালে প্রথমবারের মতো নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন বাজেট ঘোষণা করেছিলেন মেয়র আইভী। ওই বছরের ২৫ জুন প্রথম পূর্ণাঙ্গ বাজেট ঘোষণা করেন তিনি। ওই বাজেট ছিল ৩০৭ কোটি টাকার। এরপর ২০১৩-২০১৪ অর্থ বছরে নাসিকের বাজেট ছিল ; ৩ কোটি ৯২ লাখ ৮৬ হাজার ৩৭৬ টাকা। ২০১৪-২০১৫ অর্থবছরে বাজেটের পরিমাণ ছিল ২৪ কোটি ৪ লাখ ৬৯ হাজার ৫১২ টাকা। ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাজেট ছিল ৮৮ কোটি ৯০ লাখ ৮৪ হাজার ৬১৭ টাকার। ২০১৬-২০১৭ অর্থ বছরে বাজেটের পরিমাণ ছিল ১ কোটি ২০ লাখ ২৯ হাজার ৭৯১ টাকার। ২০১৬ সালের ২২ ডিসেম্বর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দ্বিতীয় মেয়াদে বিজয়ী হওয়ার পর নাসিকের ষষ্ঠ বাজেট ঘোষণা করেন মেয়র আইভী। ২০১৭ সালের ২৩ জুলাই ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরে ৬৬৩ কোটি ৬৭ লাখ ৪৩ হাজার ৬২৫ টাকা ঘোষণা করেন তিনি। ২০১৮ সালে ৭১৫ কোটি ৫১ লাখ ২১ হাজার ৩৭৭ টাকা বাজেট ঘোষণা করা হয়৷ ২০১৯-২০ অর্থবছরে ৮৭০ কোটি ৩৯ লক্ষ ৭৭ হাজার ৭৬ টাকার বাজেট ঘোষণা করেন।
বাজেট ঘোষণা কালে মেয়র আরও জানান, নারায়ণগঞ্জ শহর অবৈধ স্ট্যান্ডের শহরে পরিণত হয়েছে। তিনি বলেছেন, এই চাঁদাবাজির পেছনে কারা আছে তা আমরা সকলেই জানি। কিন্তু মুখ খুলি না। এক্ষেত্রে তিনি মিডিয়ার সক্রিয় ভূমিকার আহবান জানান।
তিনি আরও বলেন, আমি চাই ফুটপাতে হকার বসবে না। কিন্তু আরেক জনপ্রতিনিধি চায় বঙ্গবন্ধু সড়কে হকার বসুক। আমি চাই ট্রাক স্ট্যান্ড ট্রাকের জায়গায় যাক। কিন্তু অন্য একজন জনপ্রতিনিধি চান ট্রাক স্ট্যান্ড মন্ডলপাড়াতেই থাকবে। কারণ চাঁদাবাজি করতেই হবে। নির্দিষ্ট জায়গায় বাস, ট্রাক, বেবি স্ট্যান্ড থাকুক।
শহরের বিভিন্ন পয়েন্টের অবৈধ যানবাহনের স্ট্যান্ড চিহ্নিত করে সিটি মেয়র বলেন, চাষাঢ়ায় এভাবে অবৈধ স্ট্যান্ড কারা করছে? ২০ টাকা করে সিটি কর্পোরেশনের নামে রসিদ করে খানপুর হাসপাতালের সামনে থেকে ইজিবাইক থেকে চাঁদা তোলা হয়। একাধিকবার গোয়েন্দা সংস্থাগুলোকে রসিদসহ জানিয়েছি। কিন্তু কাউকেই কিছু বলা হয় না। এর পেছনে কারা তা আমরা জানি কিন্তু মুখ খুলি না। রাইফেল ক্লাবের সামনে যেখানে এমপি মহোদয় প্রায় সময়ই বসেন। সেই ক্লাবের সামনে ২৪ ঘন্টা কীভাবে অবৈধ স্ট্যান্ড থাকে? চাষাঢ়াতে কীভাবে অবৈধ স্ট্যান্ড থাকে? সারা শহর এখন অবৈধ স্ট্যান্ডের নগরী। সিদ্ধিরগঞ্জের সড়কে তো পা ফেলা যায় না। লেগুনা, অটোরিক্সার চলাচলের কারণে নিত্য যানজটের সৃষ্টি হয়। কাদের ছত্রছায়ায় এসব চলে? শহরের মানুষ এসব জানে কিন্তু বলতে সাহস পায় না।
সাধারণ জনগণকে সাথে নিয়ে দখল দারিত্বের বিরুদ্ধে কাজ করতে চান ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী। তিনি বলেন, তাদের প্রতিহত করতে চাই। যারা চোরের মতো গোপণে জনগণের স্বার্থ বিসর্জন দিয়ে সরকারি জায়গা কেনে তাদেরকে চিহ্নিত করতে চাই। কারণ তাদের পূর্বপুরুষরা পূর্বে এই দেশ, এই শহরের বিরোধীতা করেছে। এখনও করছে, ভবিষ্যতেও করবে।
অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল আমিন, প্যানেল মেয়র-১ আফসানা আফরোজ বিভা হাসান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) টিএম মোশারফ হোসেন, নির্বাহী প্রকৌশলী আজগর হোসেন, প্যানেল মেয়র-২ মতিউর রহমান মতি, প্যানেল মেয়র-৩ মিনোয়ারা বেগমসহ বিভিন্ন ওয়ার্ড কাউন্সিলরবৃন্দ।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন