সদ্য সংবাদ

 লাগাম টানা যাচ্ছে না সিন্ডিকেটের, দিশেহারা ভোক্তারা  কাশ্মীরে বন্দুকযুদ্ধে ৫ বিদ্রোহী নিহত  ব্যবসা নাই তবুও কোটি কোটি টাকার মালিক : আইভী  স্ত্রী-ছেলেসহ ডিবি কার্যালয়ে মুসা বিন শমসের   সিদ্ধিরগঞ্জে কাউন্সিলর প্রার্থীর পোষ্টার লাগাতে বাধা, মারধর  শাহরুখপুত্রকে গ্রেফতার করা সেই কর্মকর্তা নজরদারিতে   হাসপাতালে ভর্তি খালেদা জিয়া   করোনায় আক্রান্ত শিক্ষকের বেতন কাটলো দুর্নীতিগ্রস্ত জহিরুল হকের কমিটি   ছিনতাই ও খুনি চক্রের ৬ জনকে গ্রেপ্তার করছে পিবিআই নাঃগঞ্জ   খুনি নূর হোসেনের ভাতিজা বাদল ভালো, মেয়র আইভী ব্যর্থ!   সরকারি কর্মচারীদের গ্রেফতারে অনুমতির বিধান কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট  বাড়ি ভারতে, অফিস করেন সিলেটে  আবারও ষড়যন্ত্র হচ্ছে: ওবায়দুল কাদের   ই-কমার্সের প্রতারনায় ভুক্তভোগী বাণিজ্যমন্ত্রী  সাবেক প্রতিমন্ত্রী মান্নান খান ও তার স্ত্রীর বিচার শুরু   ১০ হাজার ৫০০ শ্রমিককে ভিসা দেবে যুক্তরাজ্য  দেবীগঞ্জে বাসর রাতে পাত্রের রহস্যজনক মৃত্যু  ‘চুনকা কুটির নয়, আইভীর হোয়াইট ওয়াশের জ্বালা বিরোধী পক্ষ  বিয়ের পর আমাদের বন্ধুত্ব গাঢ় হচ্ছে: মাহি  বাংলাদেশে কেউ ভালো নেই : মির্জা ফখরুল

পোপের নিরাপত্তায় ঈদে মিলাদুন্নবী ওপর নিষেধাজ্ঞা অনৈতিক ও অনভিপ্রেত : ইসলামী দল

 Sat, Dec 2, 2017 5:56 AM
পোপের নিরাপত্তায় ঈদে মিলাদুন্নবী ওপর নিষেধাজ্ঞা অনৈতিক ও অনভিপ্রেত : ইসলামী দল

ডেস্ক রিপোর্ট : : আওয়ামী ওলামা লীগ, তরিকত ফেডারেশন ও ইসলামী ঐক্যজোটের শীর্ষ নেতারা বলেছেন,

পোপের নিরাপত্তার অজুহাতে ঈদে মিলাদুন্নবী ওপর সরকারের নিষেধাজ্ঞা অনৈতিক ও অনভিপ্রেত। জনগণকে শতস্ফূর্তভাবে এ অনুষ্ঠান করতে দেওয়া উচিত। অন্যদিকে হেফাজতে ইসলামের নেতারা ভিন্নমত পোষণ করে বলেন-রাস্তায় নেমে ঈদে মিলাদুন্নবী পালন করা জনগণ পছন্দ করে না। শুক্রবার বিভিন্ন ইসলামী ও হেফাজতের নেতাদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তারা প্রতিদেকের কাছে এ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।


বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগের কার্যকরী সভাপতি হাফেজ মাওলানা আবদুস সাত্তার বলেন, পোপের নিরাপত্তা দিতে গিয়ে মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসব ঈদে মিলাদুন্নবী (সা:) পালনে ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়। এতে বাংলাদেশের সংবিধানের ৩৭ অনুচ্ছেদ লঙ্ঘন হয়েছে বলে আমি মনে করি। এটা মুসলমানদের শ্বাশত অনুষ্ঠান। এই তারিখ স্বয়ং আল্লাহ কর্তৃক নির্ধারিত। ঈদে মিলাদুন্নবী প্রতি বছর ১২ রবিউল আউয়াল রাষ্ট্রীয়ভাবে পালিত হয়। এইদিনের ইনডোর আউটডোর অনুষ্ঠান পালনের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ জনগণকে বা নবী প্রেমিদের সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষেপিয়ে তোলা একটি চিহ্নিত ব্যক্তিদের ঘৃণ্য পাঁয়তারা। তিনি বলেন, সরকারের মধ্যে ঘাপটি মেরে থাকা কিছু নাস্তিক সরকারকে জনগণের মুখোমুখি করার অপতৎপরতা চালাচ্ছে। তিনি পুলিশ কর্তৃক ঈদে মিলাদুন্নবী পালনের নিষেধাজ্ঞা সেই ষড়যন্ত্রের ইঙ্গিত করছে।


বাংলাদেশের তরিকত ফেডারেশনের মহাসচিব লায়ন এম এ আউয়াল এমপি বলেন, ঈদে মিলাদুন্নবী ২ ডিসেম্ভর হলেও সরকার ৩ ডিসেম্ভর পালনের জন্য অনুমতি দিয়েছে। তবে, সময় পরিবর্তনের কোনো প্রয়োজন ছিল না। পোপও মানবতার ব্যাপারে উদার। এ কারণে ২ ডিসেম্ভর ঈদে মিলাদুন্নবী পালন করা হলে কোনো অসুবিধা হতো না।


পাঁচটি ইসলামী দল নিয়ে গঠিত ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান মাওলানা আবদুল লতিফ নেজামী বলেন, পোপের নিরাপত্তার অজুহাতে সরকারের ঈদে মিলাদুন্নবী পালনের নিষেধাজ্ঞা অনভিপ্রেত। জনগণকে শতস্ফূর্তভাবে এইদিনটি পালন করতে দেওয়া উচিত। ঈদে মিলাদুন্নবী পালনে কোনোভাবে বাঁধা দেওয়া অনৈতিক।


হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ’র যুগ্ম মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহ ভিন্ন প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বলেন, আমি মনে করি শরীয়তের মধ্যে যে সকল কাজ করার নির্দেশনা রয়েছে, কিন্তু এর বাইরে কারো কোনো কাজ করার ক্ষমতা নেই। কুসংস্কার থেকে মানুষের বিরত থাকা উচিত। সরকারেরও করণীয় এ সমস্ত কাজ থেকে মানুষকে নিরুসাহিত করা।


হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা জুনায়েদ আল হাবিব বলেন, দেওয়ানবাগীসহ বিভিন্ন সংগঠন বাস্তা বন্ধ করে দিয়ে ঈদে মিলাদুন্নবী পালন করে থাকে, যা দেশের জনগণ পছন্দ করে না। সরকার ঈদে মিলাদুন্নবী ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়ায় ভাল হয়েছে।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন