সদ্য সংবাদ

 লাগাম টানা যাচ্ছে না সিন্ডিকেটের, দিশেহারা ভোক্তারা  কাশ্মীরে বন্দুকযুদ্ধে ৫ বিদ্রোহী নিহত  ব্যবসা নাই তবুও কোটি কোটি টাকার মালিক : আইভী  স্ত্রী-ছেলেসহ ডিবি কার্যালয়ে মুসা বিন শমসের   সিদ্ধিরগঞ্জে কাউন্সিলর প্রার্থীর পোষ্টার লাগাতে বাধা, মারধর  শাহরুখপুত্রকে গ্রেফতার করা সেই কর্মকর্তা নজরদারিতে   হাসপাতালে ভর্তি খালেদা জিয়া   করোনায় আক্রান্ত শিক্ষকের বেতন কাটলো দুর্নীতিগ্রস্ত জহিরুল হকের কমিটি   ছিনতাই ও খুনি চক্রের ৬ জনকে গ্রেপ্তার করছে পিবিআই নাঃগঞ্জ   খুনি নূর হোসেনের ভাতিজা বাদল ভালো, মেয়র আইভী ব্যর্থ!   সরকারি কর্মচারীদের গ্রেফতারে অনুমতির বিধান কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট  বাড়ি ভারতে, অফিস করেন সিলেটে  আবারও ষড়যন্ত্র হচ্ছে: ওবায়দুল কাদের   ই-কমার্সের প্রতারনায় ভুক্তভোগী বাণিজ্যমন্ত্রী  সাবেক প্রতিমন্ত্রী মান্নান খান ও তার স্ত্রীর বিচার শুরু   ১০ হাজার ৫০০ শ্রমিককে ভিসা দেবে যুক্তরাজ্য  দেবীগঞ্জে বাসর রাতে পাত্রের রহস্যজনক মৃত্যু  ‘চুনকা কুটির নয়, আইভীর হোয়াইট ওয়াশের জ্বালা বিরোধী পক্ষ  বিয়ের পর আমাদের বন্ধুত্ব গাঢ় হচ্ছে: মাহি  বাংলাদেশে কেউ ভালো নেই : মির্জা ফখরুল

চার্জশিটভুক্ত আসামি হওয়ায় সাড়ে ৩ বছরে বরখাস্ত ৩৮১ জন জনপ্রতিনিধি

 Sat, Apr 8, 2017 9:41 AM
 চার্জশিটভুক্ত আসামি হওয়ায় সাড়ে ৩ বছরে বরখাস্ত ৩৮১ জন জনপ্রতিনিধি

ডেস্ক রিপোর্ট:: গাজীপুর, রাজশাহী , সিলেট ও খুলনাসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় নির্বাচিত প্রতিনিধিরা বিভিন্ন মামলায় অভিযুক্ত হওয়া

 গত সাড়ে ৩ বছরে ৩৮১ জন জনপ্রতিনিধিকে বরখাস্ত করেছেন ¯’ানীয় সরকার বিভাগ। সিটি মেয়র বাদে ৩৫  পৌর মেয়র, ৫৭ কাউন্সিলর, ৫৩ উপজেলা চেয়ারম্যান, ৬৭ ভাইস চেয়ারম্যান, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ৯১ ও মেম্বার ৭৪ জনকে বরখাস্ত করেছে।

জানা যায়, এসব জনপ্রতিনিধি নাশকতা, বোমা হামলা ও অগ্নিসংযোগসহ বিভিন্ন মামলার চার্জশিটভুক্ত আসামি। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বরখাস্তকৃত জনপ্রতিনিধিদের অধিকাংশই বিএনপি-জামায়াতের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। এসব জনপ্রতিনিধি ভোট কেন্দ্রে আগুন, গাড়িতে পেট্রোল দিয়ে মানুষ পুড়িয়ে হত্যা, পুলিশের ওপর হামলাসহ রাজনৈতিক সহিংসতার মামলার আসামি। সংশ্লিষ্ট মামলায় তাঁদের বিরুদ্ধে চার্জশিট দেয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তাদের সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

কোন কোনো  উপজেলায় ক্ষমতাসীন দলের নেতারা ভাইস-চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়েছেন। ওই সব ভাইস চেয়ারম্যানরা অনেক ক্ষেত্রে বিএনপি-জামাতের সমর্থক উপজেলা চেয়ারম্যানকে সরানোর জন্য পেছন থেকে কলকাঠি নাড়েন। অনেকে এক্ষেত্রে সফলও হন। অনেক এলাকায় নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিরা পদে বসতে না পারায় ওই সব এলাকার জনগণ সেবা থেকে বঞ্চিত হ”েছ।

¯’ানীয় সরকার বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, বিদ্যমান ¯’ানীয় সরকার (সিটি করপোরেশন), ¯’ানীয় সরকার (পৌরসভা), ¯’ানীয় সরকার (উপজেলা পরিষদ) এবং ¯’ানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইন অনুযায়ী কোনো জনপ্রতিনিধি যে কোনো ধরনের  ফৌজদারি অপরাধে অভিযুক্ত হলে (আদালত কর্তৃক চার্জশিট গৃহীত হলে) কিংবা ওই প্রতিনিধি শারীরিকভাবে সক্ষমতা হারালে কিংবা পরিষদের সভায় পরপর তিনবার অনুপ¯ি’ত থাকলে ¯’ানীয় সরকার মন্ত্রণালয় তাকে সাময়িক বরখাস্ত করতে পারে। এ আইনের ধারায় জনপ্রতিনিধিদের বরখাস্ত করা হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ২০১৪ সালের ৫ই জানুয়ারির জাতীয় নির্বাচনের পর বিএনপি-জামায়াত জোটের ডাকা হরতাল-অবরোধে মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা ¯’বির হয়ে যায়। নাশকতা আর বোমাবাজিতে অনেক নিরীহ মানুষের প্রাণ যায়। ওই তা-বের রেশ কাটতে না কাটতেই ক্ষমতাসীন সরকারবিরোধী আন্দোলনের নামে লাগাতার হরতাল-অবরোধের কর্মসূচি দেয় বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট। এসব ঘটনার মামলায় আসামি করা হয় বিএনপি-জামায়াতসহ ২০ দলীয় জোটের নেতাকর্মী ও জনপ্রতিনিধিদের।

তদন্ত শেষে পাঁচ শতাধিক জনপ্রতিনিধির বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। আদালতে চার্জশিট গৃহীত হওয়ার পরপরই ওই সব জনপ্রতিনিধিকে আইন অনুযায়ী সাময়িক বরখাস্ত করা হ”েছ। তবে অনেক জনপ্রতিনিধি উ”চ আদালতে রিট করে তাঁদের বরখাস্তে ¯’গিতাদেশ নিয়ে জনপ্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে যা”েছন।

 

জানা গেছে বগুড়া, সাতক্ষীরাসহ কয়েকটি এলাকার বেশির ভাগ জনপ্রতিনিধিকে বরখাস্ত করা হয়েছে। সর্বশেষ গত রোববার রাজশাহী ও সিলেট সিটি করপোরেশনের দুই মেয়রকে দ্বিতীয় দফায় বরখাস্ত করে ¯’ানীয় সরকার বিভাগ। উ”চ আদালতের আদেশে রোববার মেয়রের দায়িত্ব নেয়ামাত্র আবারও বরখাস্ত হন রাজশাহীর মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন ও সিলেটের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। তবে এরই মধ্যে সিলেটের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ও রাজশাহীর মেয়র মোসাদ্দেক হোসেনের বরখাস্তের আদেশ ¯’গিত করা হয়েছে। তারা ফের দায়িত্ব বুঝে নিয়েছেন।

একই সঙ্গে দ্বিতীয় দফায় বরখাস্ত হওয়া হবিগঞ্জ পৌরসভার  মেয়র জিকে গউছের বরখাস্ত আদেশ ¯’গিত করা হয়েছে। এ ছাড়া সম্প্রতি বরখাস্ত করা মেহেরপুরের মুজিবনগর উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আমিরুল ইসলাম ও ভাইস  চেয়ারম্যান জার্জিস হোসেনের বরখাস্ত আদেশে ¯’গিতাদেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। তাই তাদের দায়িত্ব পালন করে যেতেও কোনো সমস্যা হবে না।

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement

আরও দেখুন